বদলি পরীক্ষা দিতে গিয়ে ঢাবির সাবেক ছাত্র দণ্ডিত!

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষায় অন্যের হয়ে পরীক্ষা দিতে গিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক এক ছাত্র দণ্ডিত হয়েছেন।

দণ্ডপ্রাপ্ত মো. মনির হোসেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের ৩৭তম ব্যাচের শিক্ষার্থী, শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলের আবাসিক ছাত্র ছিলেন তিনি।

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক তপন কুমার সাহা বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, মঙ্গলবার ‘এফ’ ইউনিটের পরীক্ষা চলাকালে পাবলিক হেলথ্ অ্যান্ড ইনফরমেটিক্স বিভাগের পরীক্ষাকেন্দ্র থেকে মনিরকে আটক করেন হল পরির্দশক। পরে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনাকারী নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট প্রণব কুমার ঘোষ তাকে এক বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেন।

মুন্সীগঞ্জ জেলার সিরাজদিখান থানার খাসকান্দি গ্রামের মৃত কেরামত আলীর ছেলে মনির। এক লাখ টাকার চুক্তিতে ওমর ফারুক নামের এক ভর্তিচ্ছুর হয়ে পরীক্ষা দিতে এসেছিলেন তিনি।
এ নিয়ে এ বছর জাহাঙ্গীরনগরে ভর্তি পরীক্ষায় প্রবেশপত্রে ছবি পাল্টে বদলি হিসেবে পরীক্ষা দিতে আসায় ঢাবি ও কুয়েট শিক্ষার্থীসহ মোট চারজনকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দিল ভ্রাম্যমাণ আদালত।

গত ১৬ অক্টোবর অন্যের হয়ে পরীক্ষা দেওয়ার দায়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী রাকিবুল হাসানকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

এর আগে ৯ অক্টোবর ভর্তি পরীক্ষার দ্বিতীয় দিনে একই ধরনের অভিযোগে খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুয়েট) এক ছাত্রসহ দুইজনকে এক মাসের কারাদণ্ড দেয় ভ্রাম্যমাণ আদালত।

বিডিনিউজ