‘ল্যাংড়া আমির’ বন্দুকযুদ্ধে নিহত

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের চর মিরেরবাগের বালুর মাঠ এলাকায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে চাঞ্চল্যকর পরাগ অপহরণ মামলার মূল আসামি মুক্তার হোসেন আমির ওরফে ল্যাংড়া আমির নিহত হয়েছেন। এসময় আহত হয়েছেন ৪ পুলিশ সদস্য।

সোমবার (৩১ জুলাই) দিবাগত গভীর রাতে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। আহত পুলিশ সদস্যরা হলেন- উপ-পরিদর্শক শরিফুল ইসলাম, মো. শাহীন, শাখাওয়াত ইমতিয়াজ ও কনস্টেবল ফেরদৌস।

দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, ‘বেলা ১১টায় এ বিষয়ে ঢাকা জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করা হবে। আমিরের মরদেহ বর্তমানে স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল (মিডফোর্ড) মর্গে রয়েছে বলেও জানান তিনি।’

জানা গেছে, ২০০০ সালে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের গোলাম বাজার এলাকায় পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালায় আমির। এসময় পুলিশও পাল্টা গুলি চালিয়ে তাকে আটক করে। ওই সময় তার হেফাজত থেকে একটি নাইন এমএম পিস্তল ও ১৭ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। এরপর থেকেই কেরানীগঞ্জের ত্রাস হিসেবে পরিচিতি পায় শীর্ষ সন্ত্রাসী ল্যাংড়া আমির।

বিডিমর্নিং

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *