সিরাজদিখানে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে কুপিয়ে জখম

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলায় যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্ত্রীর মাথায় বঁটি দিয়ে কুপিয়ে মরিচের গুঁড়া ঢেলে দিয়েছে স্বামী ও শাশুড়ি। শনিবার সকাল সাড়ে ১১টায় উপজেলার রশুনিয়া ইউনিয়নের দক্ষিণ তাজপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে। আহত ভগবতী রানী মণ্ডলকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলার দক্ষিণ তাজপুর গ্রামের বিশু মণ্ডলের ছেলে শ্যামল মণ্ডলের সঙ্গে চার বছর আগে নারায়ণগঞ্জ জেলার ফতুল্লা থানার বক্তাবলী গ্রামের শরৎ মণ্ডলের ছোট মেয়ে ভগবতী মণ্ডলের বিয়ে হয়। আহত ভগবতী রানী মণ্ডল জানান, বিয়ের পর থেকেই স্বামী শ্যামল মণ্ডল ও শাশুড়ি বেবী মণ্ডল যৌতুকের জন্য চাপ দিয়ে আসছিল। নিজের সুখের কথা ভেবে বড় দুই ভাই ও বাবা-মাকে চাপ দিয়ে অনেকবার টাকা নিয়ে এসেছি।

এখন শ্যামল বিদেশে যাওয়ার জন্য আমার বাবা-মা ভাইদের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা এনে দিতে বলেছিলেন। এবার আমি তাদের কাছ থেকে টাকা এনে দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে অমানুষিক নির্যাতন করত। এর জের ধরে শনিবার সকালে আবারও টাকা আনার জন্য চাপাচাপি করলে আমি সরাসরি টাকা আনার কথা না করে দেই।

যুগান্তর