গাজী আশরাফ হোসেন লিপু : মুন্সীগঞ্জের কৃতি সন্তান ক্রিকেটার

মাহবুব আলম জয় : ঐতিহাসিক মুন্সীগঞ্জ তথা বিক্রমপুরে অসংখ্য গুনিদের জন্ম। ইচ্ছাশক্তি আর অধ্যাবসায়ে এই জনপদের যে সকল কৃতি সন্তান বিশ্বমানচিত্র এ দেশকে এনে দিয়েছেন সম্মান তাদেরই একজন দেশ বরেণ্য খেলোয়ার (জন্ম জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক ক্রিকেটার ও অধিনায়ক গাজী আশরাফ হোসেন লিপু। তিনি ১৯৬০ সালের ২৯ ডিসেম্বর ঢাকায়। জন্মগ্রহণ করেন। তার পৈত্রিক মুন্সীগঞ্জ জেলাধীন লৌহজং উপজেলায়। উইকিপিডিয়া ও বিভিন্ন তথ্য সূত্রে জানা যায় তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের পক্ষ হয়ে প্রথম সাতটি একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অংশগ্রহণ করেন। তন্মধ্যে ছিল – ১৯৮৬ সালের জন প্লেয়ার গোল্ড লীফ ট্রফিতে দুইটি ও ১৯৮৮ সালের এশিয়া কাপে তিনটি এবং ১৯৯০ সালে অস্ট্রেলিয়া-এশিয়া কাপে দুইটি খেলা। ক্রিকেট জীবন থেকে অবসর নেয়ার পর ‘লীপু’ ডাকনামে পরিচিত গাজী আশরাফ বাংলাদেশে ক্রিকেট খেলার মানোন্নয়নে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের শীর্ষ পর্যায়ের কর্মকর্তা হিসেবে একনিষ্ঠভাবে অন্যান্যদের সাথে কাজ করে যাচ্ছেন।

বিক্রমপুরের এই কৃতি সন্তান বাংলাদেশের ক্রিকেটের ঊষালগ্নে সবচেয়ে দীর্ঘস্থায়ী অধিনায়কত্বের দায়িত্ব পালন করেছিলেন। মার্চ, ১৯৮৫ সালে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দলকে নেতৃত্ব দেন। এর ১৯৯০-এর গ্রীষ্মকালে আইসিসি ট্রফি প্রতিযোগিতা পর্যন্ত বাংলাদেশের দায়িত্বে ছিলেন। জাতীয় দলের দায়িত্ব গ্রহণের পূর্বে ঘরোয়া ক্রিকেটে বেশ সফল ছিলেন তিনি। ঢাকা লীগের আবাহনী ক্রীড়া চক্রের দায়িত্ব পালনসহ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্রিকেট দলেরও নেতৃত্ব দেন। দেশের ক্রিকেট অঙ্গনে তার অবদান এই জাতি কখনো ভুলবে না। গাজী আশরাফ হোসেন লিপু মুন্সীগঞ্জ জেলা ক্রিড়াসংস্থার কার্যনির্বাহী কমিটির অন্যতম সদস্য হিসেবে গুরুত্ব পূর্ণ অবদান রেখে যাচ্ছেন। তিনি বিভিন্ন সংগঠন হতে বেশ সম্মাননায় ভূষিত হয়েছেন। সভ্যতার জনপদ তথা এদেশের ইতিহাসে কিংবদন্তি খেলোয়ার হিসেবে তিনি সকলের হৃদয়ে আছেন এবং থাকবেন।