দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহতের ঘটনায় ইউপি সদস্যসহ ২৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা

মুন্সীগঞ্জমুন্সীগঞ্জের সদরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে নিহতের ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। নিহত মো. মাসুদ ঢালীর মা শিল্পী বেগম (৪৫) বাদী হয়ে শনিবার রাতে মুন্সীগঞ্জ সদর থানায় এই মামলা করেন। আওয়ামী লীগ সমর্থিত ইউপি সদস্যসহ ২৮ জনের বিরুদ্ধে এই মামলা করা হয়।

রবিবার বিকালে মুন্সীগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইউনুচ আলী বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, চরমশুরা গ্রামের আওয়ামী লীগ সমর্থিত বর্তমান ৮নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মন্টু দেওয়ান ও নির্বাচনে পরাজিত ইউপি সদস্য প্রার্থী মো. রহিমকে মামলায় প্রধান আসামি করা হয়েছে। মাসুদ ঢালীর মা এই দুইজনসহ ২৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন। এই ঘটনায় হৃদয়(২২) নামে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এই ঘটনায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। তবে, তদন্ত করে বিস্তারিত বলা যাবে।

নিহতের মা শিল্পী বেগম বলেন, ‘আমার ছেলে হত্যার বিচার চাই। যারা আমার ছেলেকে হত্যা করেছে তাদের বিচার করতে হবে।’

প্রসঙ্গত, শনিবার (১০ জুন) ভোরে জেলার সদর উপজেলার চরকেওয়ার ইউনিয়নের দক্ষিণ চরমশুরা গ্রামে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে লিপ্ত হয় আওয়ামী লীগের প্রতিদ্বন্দ্বী দুই গ্রুপ। এতে গুলিতে মাসুদ ঢালী (২২) নিহত ও অপর দুইজন গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হয়। এছাড়াও আহত হয় অন্তত আরও ১০ জন।

বাংলা ট্রিবিউন

Comments are closed.