টঙ্গীবাড়ীতে ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতির বাড়িতে সাধারণ সম্পাদকের হামলা

টঙ্গীবাড়ী উপজেলার দিঘিরপাড় ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা অলি উল্লাহ খানের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করেছে ওই ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামীম মোল্লা সহ সন্ত্রাসীরা।

বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে টঙ্গীবাড়ী থানা যুবদল সভাপতি এবং দিঘিরপাড় ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামীম মোল্লা ১৫-২০ জন সন্ত্রাসী নিয়ে বিএনপি সভাপতির বাড়িতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

জানাগেছে, দিঘিরপাড় এলাকার বিবাদমান প্রভাবশালী ২ গোত্র হাওলাদার ও খান পরিবারের মধ্যে চলমান দ্বন্দ্ব বুধবার থেকে প্রকট আকার ধারন করে। এনিয়ে খান গ্রুপের সাথে শামীম মোল্লার বুধবার বিকালে দিঘিরপাড় বাজারে কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতি হয়।

এর জের ধরে শামীম মোল্লাসহ ১৫-২০জন সন্ত্রাসী খান গ্রুপের অলি উল্লাহ খানের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর চালায়। এ ব্যাপারে অলি উল্লাহ খান জানান, শামীম মোল্লার নেতৃত্বে ১৫-২০ জন সন্ত্রাসী আমার ঘরের দরজা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে ব্যাপক ভাংচুর করে। এ সময় ২০০-২৫০ জন লাঠি সোটা হতে বাইরে দাড়িয়ে ছিলো। এ ব্যাপারে টঙ্গীবাড়ী থানা ওসি ঘটনার সত্যাত্বা স্বীকার করে জানান, পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এখনো অভিযোগ হতে পাই নাই। অভিযোগের প্রেক্ষিতে ব্যাবস্থা নেওয়া হবে। এ ব্যাপারে শামীম মোল্লার মোবাইলে ফোন করলে সে জানায় ওলিউল্লাহ খান তার নিজ বাড়িতে নিজেই ভাংচুর চালিয়ে আমাকে ফাসানোঁর চেষ্টা করছে।

বিক্রমপুর চিত্র