বিয়ে ভাঙতে গিয়ে প্রেমিকার বাবার হাতে খুন হলো প্রেমিক!

ভালবাসার জন্য প্রাণ দিল প্রেমিক। প্রেমিকার বিয়ে হয়ে যাচ্ছিল অন্য কারও সঙ্গে। সেই বিয়ে ভাঙতে গিয়ে ভালবাসার মানুষটির বাবার হাতে খুন হন ওই যুবক। প্রেমিকার বাড়িতেই তাকে পিটিয়ে হত্যা করে প্রেমিকার বাবা।

মঙ্গলবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী উপজেলায়। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

প্রেমিকা শারমিনের বিয়ে ঠেকাতে প্রাণ দিতে হলো প্রেমিক নবীনূরকে (২০)। প্রেমিকার বাড়িতে তার বাবা ও পরিবারের অন্য সদস্যরা পিটিয়ে ওই প্রেমিক যুবককে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ ওঠেছে।

প্রেমিক নবীনূর টঙ্গীবাড়ী উপজেলার হাসাইল-বানারী ইউনিয়নের মতি শেখের ছেলে। সে ঢাকায় থাকতো। নিহতের পরিবারের দাবি, শারমিনের বাবা আব্বাসসহ ওই পরিবারের লোকজন নবীনূরকে পিটিয়ে ও শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করেছে।

স্থানীয় সূত্র জানা গেছে, নবীনূরের সঙ্গে একই উপজেলার পাঁচগাঁও সাতুল্লা এলাকার আব্বাস মিয়ার মেয়ে শারমিনের (১৭) প্রেমের সর্ম্পক ছিল। মঙ্গলবার শারমিন ফোনে নবীনূরকে জানায়, তার বাবা জোর করে তাকে অন্যত্র বিয়ে দিয়ে দিচ্ছে।

খবর পেয়ে নবীনূর প্রেমিকার বিয়ে ঠেকাতে ঢাকা থেকে সরাসরি শারমিনদের বাড়িতে যান। কিন্ত প্রেমিকার বাড়িতেই তার রহস্যজনক মৃত্যু হয়। নবীনূরের পরিবারকে জানানো হয়, সে বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেছে।

টঙ্গীবাড়ী থানার এসআই মিজানুর রহমান জানান, একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে। ময়নাতদন্তের উপর ভিত্তি করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

বিডিলাইভ

Comments are closed.