পদ্মায় স্পিডবোট ডুবির ঘটনায় বিএনপি নেতার মরদেহ উদ্ধার

মুন্সীগঞ্জের পদ্মা নদীর লৌহজং টার্নিং পয়েন্টে স্পিডবোট উল্টে যাওয়ার ঘটনায় নিখোঁজ শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলা বিএনপির সভাপতি শিকদার ইকবাল মাহমুদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

এ পর্যন্ত এ দুর্ঘটনায় দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করা হলো। এখনও আরো একজন নিখোঁজ রয়েছে।

শুক্রবার (১০ মার্চ) দুপুর দেড়টার দিকে শিমুলিয়া ফেরিঘাট এলাকা থেকে মাওয়া নৌ পুলিশ ভাসমান মরদেহটি উদ্ধার করে।

মাওয়া নৌ-ফাঁড়ির ইনচার্জ সরজিৎ কুমার ঘোষ বাংলানিউজকে জানান, স্পিডবোট ডুবির ঘটনায় শরিয়তপুরের জাজিরা উপজেলা বিএনপির সভাপতি শিকদার ইকবাল মাহমুদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। দুপুরে শিমুলিয়া এক নম্বর ফেরিঘাট এলাকায় মরদেহটি ভেসে উঠলে মাওয়া নৌ পুলিশ উদ্ধার করে তার স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করে।

বুধবার (৮ মার্চ) দুপুরে ঢাকা থেকে বাড়ি যাওয়ার জন্য রওনা হন শিকদার ইকবাল। পরে তিনি পদ্মা নদী পার হওয়ার জন্য মুন্সীগঞ্জের শিমুলিয়া ঘাট থেকে স্পিডবোটে করে শরীয়তপুরের মাঝির ঘাটের উদ্দেশে রওনা হন। পথে ঝড়ের কবলে পড়ে স্পিডবোটটি উল্টে গেলে নিখোঁজ হন তিনি।

এ ঘটনায় এখনও তাহমিনা আক্তার (১১) নামে এক স্কুলছাত্রী নিখোঁজ রয়েছে।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর

Comments are closed.