লৌহজংয়ের কুমারভোগ ‘মিনি’ পতিতালয়ে পরিণত হয়েছে

মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার কুমারভোগ ‘মিনি’ পতিতালয়ে পরিণত হয়েছে। এখানে ভাসমান পতিতাদের উপদ্রব বৃদ্ধি পেয়েছে। এক শ্রেনীর দালাল আগে বাইরে থেকে এখানে বাজে মেয়েদের নিয়ে আসলেও এখন এলাকার মেয়েদের নানান প্রলভন দেখিয়ে পতিতাবৃত্তিতে নামিয়ে দিচ্ছে। লৌহজং উপজেলা চেয়ারম্যান মো. ওসমান গণি তালুকদার গতকাল বুধবার উপজেলা মাসিক আইন শৃঙ্খলা সাভায় এ রকম বক্তব দিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

লৌহজং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. খালেকুজ্জামানের সভাপতিত্বে আরো বক্তব্য রাখেন ভাইস চেয়ারম্যান জাকির বেপারী, বিক্রমপুর প্রেসক্লাব সভাপতি মো. মাসুদ খান, লৌহজং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আনিচুর রহমান, কনকসার উইপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ, কুমারভোগ ইউপি চেয়ারম্যান লুৎফর রহমান প্রমূখ।

সভায় বক্তাগন বলেন, মুন্সীগঞ্জকে বাল্য বিবাহ মুক্ত ঘোষনা করা হলেও কিছু কিছু অসৎ কাজী, ইউপি চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের জন্য তা করা সম্ভব হচ্ছেনা। অসৎ মেম্বাররা নাবালিকাদের সাবালিকা বলে সনাক্ত করে চেয়ারম্যানদের দিয়ে জন্ম সদন নিচ্ছে। আবার অনেক ক্ষেত্রে বাবা-মাও নাবালিকা মেয়ের জায়গায় সাবালিকা এক মেয়েকে এনে হাজির করে নাবালিকা মেয়ের নামে সার্টিফিকেট নিয়ে যাচ্ছে। এতে সহযোগিতা করছে কিছু কিছু অসৎ মেম্বার। এ নিয়ে ব্যাপক ক্ষোভ প্রকাশ করা হয়। এছাড়া মাদক, ঈদের পরে ঢাকা-মাওয়া মহাসড়কে বাস দুর্ঘটনা, রাস্তার উপর হতে ড্রেজারের পাইপ অপসারণসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়। তাছাড়া আসন্ন দুর্গাপুজা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতেও বিস্তারিত আলোচনা হয়।

জনকন্ঠ

Comments are closed.