টঙ্গীবাড়ীতে সরকারী জমিতে বহুতল ভবণ নির্মান

টঙ্গীবাড়ী উপজেলার কাইচাইল গ্রামে কোটি টাকার সরকারী ক তফসিলভুক্ত সম্পত্তি দখল করে বহুতল ভবন নির্মাণ কাজ চলছে। স্থাণীয় এক নেতার ছত্রছায়ায় ভূমিদশ্যূ আইয়ূব আলী শেখ কোন নিয়ম নীতির তোয়ক্কা না করে এই নির্মাণ কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন।

টঙ্গীবাড়ী সহকারী কমিশনার ভূমি অফিস থেকে ওই অবৈধ স্থাপনা সড়িয়ে নেওয়ার জন্য আইয়ুব আলীকে নোটিশ করা হয়েছে বলা হলেও রহস্যজনক কারনে থেমে নেই ওই ভবন নির্মাণ কাজ। স্থাণীয়রা জানান, ভূমি অফিসকে ম্যানেজ করেই চলছে এই ভবন নির্মাণ।

গত কয়েক মাস যাবৎ এই নির্মান কাজ চললেও প্রশাসন উচ্ছেদের কথা বললেও কাজ বন্ধের তেমন উদ্যেগ না নেওয়ায় এলাকায় বিষয়টি চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এর আগে সুচতুর আইয়ূব আলী গত ঈদুল ফিতারের ৯ দিনের ছুটির মধ্যে ওই বহুতল ভবনের ছাদ ঢালাই করে।

বর্তমানে ওই ভবনের মধ্যে দেয়াল নির্মান ও ভবন প্লাষ্টারের কাজ পূর্ণদমে চলছে। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, কাইচচাইল মৌজার এস.এ-৪৯০ ও ৪৯৩নং দাগের ৮৩ শতাংশ সরকারী ক তফসিলভূক্ত সম্পত্তির মধ্যে আইয়ূব আলী সেখ বহুতল ভবন নির্মাণ করছেণ। ৪ জন শ্রমিক ওই ভবনে প্লাষ্টার কাজ করছেন। স্থাণীয়রা জানান, ওই সম্পত্তিতে বনবিভাগের রোপণ করা পুরানো বৃক্ষ কেটে উজার করে এ নির্মাণ কাজ চালচ্ছেন আইয়ূব আলী।

এ ব্যাপারে আয়ুুব আলীর সাথে যোগাযোগ করা হলে সে, ওই এলাকার স্থাণীয় নেতা লাবু শিকদারের নাম উল্লেখ করে বলেন, তার নির্দেশে নির্মিত ভবনটি ভেঙ্গে ফেলা এতো সহজ নয়। এ ব্যাপারে লাবু শিকদারের সাথে যোগযোগের চেষ্টা করে তার মোবাইল বন্ধ পাওয়া গেছে। টঙ্গীবাড়ী সহকারী কমিশনার ভূমি আবেদা আফসারীর সাথে যোগাযোগ করা হলে সে জানায়, আমরা ভবনটি অপসারনের জন্য আইনানুগ প্রদ্ধতিতে আগাচ্ছি। যথাযথ পক্রিয়ার মাধ্যমে ভবনটি অপসারন করা হবে।

বিক্রমপুর চিত্র

Comments are closed.