মুন্সিগঞ্জের বন্যার পানি কমতে শুরু করেছে

মুন্সীগঞ্জে বন্যার পানি কমতে শুরু করেছে। বুধবার সকালে ৬ সেন্টিমিটার কমে ভাগ্যকূল পয়েন্টে বিপদ সীমার ৫৩ সেন্টিমিটার এবং ৬ সেন্টিমিটার কমে মাওয়া পয়েন্টে বিপদ সীমার ৩২ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে বইছে।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আব্দুল আউয়াল এসব তথ্য দিয়ে জানান, পদ্মার পানি কমতে শুরু করেছে। নতুন করে আর কোন এলাকা প্লাবিত হয়নি।
এদিকে বন্যার পানি কমতে শুরু করলেও মানুষের দুর্ভোগ বেড়েছে। নিম্নাঞ্চলের পানিবন্দি পরিবারগুলোর কষ্টের মধ্যে দিনাতিপাত করছে। লৌহজং উপজেলার কলমা, ডহরী, শামুরবাড়ি, কনকশার, যসলদিয়া, কান্দিপাড়া, টঙ্গীবাড়ি উপজেলার হাসাইল, বানারী, পাঁচনখোলা, নগরযোয়ার, পাঁচগাঁও, কামারখাড়া ও শ্রীনগর উপজেলার কবুতরখোলাসহ পদ্মা তীরের গ্রামগুলো কয়েক হাজার পরিবার এখনও বন্যাকবিলিত। বিষুদ্ধ খাবার পানি সহ নানা সমস্যায় পড়েছে তারা।

জেলা ত্রাণ কর্মকর্তা আব্দুর রহমান জানিয়েছেন, দুর্গতের সাহায্য সহযোগিতায় সরকারিভাবে চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। সরকারীভাবে লৌহজং, টঙ্গীবাড়ি ও শ্রীনগর উপজেলায় দুর্গতদের মাঝে ১০ টন করে চাল বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। সকল দিকে সর্তক দৃষ্টি রাখা হয়েছে।

বাসস

Comments are closed.