শ্রীনগরে অপহরণ কালে সেনা সদস্য সহ আটক ৫

আরিফ হোসেন: ঢাকার নবাবগঞ্জ থেকে এক মাদক ব্যবসায়ীকে অপহরণ করে রাজধানীতে নিয়ে যাওয়ার সময় শুক্রবার সকাল ১০ টার দিকে শ্রীনগর উপজেলার বাড়ৈখালী এলাকায় এক সেনা সদস্য সহ ৫ জনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী। এসময় স্থানীয়রা অপহরনে ব্যবহৃত একটি সাদা রংয়ের প্রাইভেটকার, তিনটি ধারালো ছোরা, লোহার রড ও রশি আটক করে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, নবাবগঞ্জের মুসলেম হাটি গ্রামের আমজাদ মাষ্টারের ছেলে ওই এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী সুজন (৩৫) কে সকাল ৮ তার দিকে তারই গ্রামের সেলিম নামে এক যুবক স্থানীয় এক চায়ের দোকান থেকে ডেকে পার্শ্ববর্তী পাকা রাস্তায় নিয়ে যায়। এসময় পূর্ব থেকে ওত পেতে থাকা একটি প্রাইভেট কারে সুজনকে তুলে নিয়ে ঢাকার দিকে রওনা হয়।

সকাল দশটার দিকে প্রাইভেটকারটি শ্রীনগর উপজেলার বাড়ৈখালী বাজারে পৌছলে সুজন চিৎকার শুরু করে। সুজনের চিৎকারে লোকজন এগিয়ে এসে প্রাইভেট কারটির গতি রোধ করে অপহরণকারী নবাগঞ্জের দূর্গাপুর গ্রামের ইমান আলীর ছেলে সফিউদ্দিন (২৮), একই গ্রামের আজিম উদ্দিনের ছেলে নাদিম (২৫), মোজাম্মেল হকের ছেলে সৌরভ (২৬), মোসলেম হাটি গ্রামের আবু সাঈদের ছেলে সেলিম (২৮), একই গ্রামের আনোয়ার খানের ছেলে দুলাল (২৭) কে আটক করে গন ধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে।

এদের মধ্যে সফিউদ্দিন বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ল্যান্স কর্পোরাল হিসাবে কর্মরত রয়েছে বলে পুলিশ জানায়। মাদক ব্যবসা নিয়ে বিরোধের জের ধরে এঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশ ধারণা করছে।

শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ সাহিদুর রহমান জানান, এঘটনায় অপহরণ মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Comments are closed.