বজ্রযোগিনীতে ৩ অন্তসত্ত্বা নারী সহ ৪ মহিলাকে পেটালেন মেম্বার

মুন্সীগঞ্জে জমি সংক্রান্ত্র বিরোধকে কেন্দ্র করে রাজিউর রহমান (রাজীব) নামে এক মেম্বার পেটালেন ৩ অন্তসত্ত্বা নারী সহ ৪ মহিলাকে পিটিয়েছে। এ ঘটনায় গুরুতর আহত অবস্থায় তাদেরকে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শুক্রবার সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে সদর উপজেলার বজ্রযোগিনী ইউনিয়নের ধানদর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্রে জানাযায়, রাজিউর রহমান (রাজীব) মেম্বার ও বাদল হাওলাদারের মধ্যে দীর্ঘ ২০ বছর যাবত জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিলো। বিরোধের কারনে শনিবার দু’পক্ষের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে লাঠিসোটা নিয়ে রাজিউর মেম্বার তার লোকজন নিয়ে প্রতিপক্ষ বাদল হাওলাদারের পুরুষ শূণ্য বাড়ীতে হামলা চালিয়ে মহিলাদের এলোপাথারী পিটাতে থাকেন।

এ সময় অন্তসত্ত্বা বিউটি বেগম (২০)কে অসঙ্খা জনক অবস্থায় মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অপর আহত লিপি বেগম (৩৫),সালমা বেগম (২১) সহ বিউটি বেগমের মা নিলুফা বেগম (৪৫)। খবর পেয়ে বাদল হাওলাদার তাদের বাঁচাতে এগিয়ে আসলেও সে আহত হন। হামলার শিকারে আহত বাদল হাওলাদার বলেন, রাজিউর মেম্বারের সাথে আমাদের দীর্ঘ ২০ বছর যাবত জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিলো। সেই বিরোধদের কারনে আমার সাথে সকালে কথা কাটাকাটি হয়। পরে আমি জমির পানি ছাড়াতে গেলে সেখানেও একই ঘটনা ঘটে।

পরে মেম্বার ও তার লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে আমার বসত বাড়ীতে হামলা চালিয়ে বাড়ীতে থাকা অন্তসত্ত্বা নারীদের ব্যাপক মারধর করে গুরুতর আহত করে এবং মারধরের ঘটনা পুলিশ ও সাংবাদিকদের জানালে প্রানে মেরে ফেলা হবে এমন হুমকি প্রদান করেন কাউকে জানাতে সাহস পাইনি।

তবে এসব বিষয় অস্বীকার করেছেন রাজিউর রহমান রাজীব মেম্বার।

মারধরের ঘটনাটি নিশ্চিত করে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মুন্সীগঞ্জ সদর থানার এসআই হাশেম বলেন, এ ঘটনায় একটি লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে । তদন্ত চলছে তদন্ত শেষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

চমক নিউজ

Comments are closed.