গজারিয়ায় সওজ’র জমি দখল করে স্থাপনা নির্মাণ

মোঃ আমিরুল ইসলাম নয়ন: মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলার ভবেরচর বাস স্ট্যান্ডের সন্নিকটে মতলব সিএনজি পা¤প সংলগ্ন সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের প্রায় ২ কোটি টাকার জমি ও জলাশয়সহ একাধিক ব্যক্তি মালিকানার জমি অবৈধভাবে দখল করে স্থাপনা নির্মাণ করছে হাসান ট্রেডিং লিঃ নামে একটি প্রতিষ্ঠান। উপজেলা ও থানা প্রশাসনের কাছাকাছি স্থানে দখল উৎসব চললেও সংশ্লিষ্ট প্রশাসনসহ উপজেলা ও থানা প্রশাসন পালন করছে নীরব দর্শকের ভূমিকা ।স্থানীয় কতিপয় প্রভাবশালী আর প্রশাসনকে ম্যানেজ করে রীতিমত প্রশাসনের নাকের ডগায় চলছে তাদের এই অবৈধ কর্মকান্ড। সরকার এই জায়গা তাদের লিজ দিয়েছে বলে জানায় প্রতিষ্ঠানটির এক কর্মকর্তা।

তবে প্রমাণ হিসেবে কোন কাগজ-পত্র দেখাতে পারেননি তিনি।অথচ ২০০৯ সালের পর সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর ভূমি লিজ দেওয়া বন্ধ করে দিয়েছে। তাহলে কিভাবে প্রতিষ্ঠানটি তাদের এই নির্মাণকাজ চালাচ্ছে এমন প্রশ্নের উত্তর জানতে চাইলে,ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাহবুবা বিলকিস জানান,সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর সরকারি জমিতে নির্মিত অবৈধ স্থাপনার উচ্ছেদের জন্য আমাদের সাহায্য চাইলে,দখলকৃত জায়গা সড়ক ও জনপথকে দখলমুক্ত করে দিবে উপজেলা প্রশাসন ।এদিকে নিজের পৈত্তিক স¤পত্তি হারালেও দখলদারের হুমকি আর প্রাণ ভয়ে কিছু বলতে পারছে না ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারগুলো।

বাউশিয়া গ্রামের জসিম পাঠান বলেন,প্রতিষ্ঠানটি তার পৈত্তিক স¤পত্তি দখল করেছে।প্রথমে উপযুক্ত দাম দিয়ে তারা জমিটি কিনে নিবে বললেও,টাকা না দিয়ে জোরপূর্বক জমিতে বালি ভরাট করে ফলেছে।পরে টাকা চাইতে গেলে স্থানীয় সন্ত্রাসীদের দিয়ে তাকে নানাভাবে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে।চরম উৎকন্ঠায় আর নিরাপত্তা হিনতায় দিন কাটছে তার।হত দরিদ্র কৃষি নির্ভর এই পরিবারগুলোর চাষের জমি হারিয়ে আজ পথে বসার উপক্রম হয়েছে।সরকার এই এদিকে সুদৃষ্টি দিবেন এই দখলদারদের কবল থেকে সরকারি জমি ও তাদের জমি গুলো মুক্ত করে তাদের ফিরিয়ে দিবেন এমনটাই প্রত্যাশা ভুক্তভোগী পরিবার গুলোর।

এফএনএস

Comments are closed.