বৈখরে ঐত্যিবাহী কাবাডি খেলা অনুষ্ঠিত

মো. হোসনে হাসানুল কবির: মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার বৈখর এলাকায় ঈদ পূর্নমিলনি উপলক্ষে বিবাহিত বনাম অবিবাহিত কাবাডি প্রতিযোগিতা শুক্রবার বিকাল ৪টায় অর্নিবান মাঠে অনুষ্ঠিত হয়। এ খেলায় দুইটি দল অংশ গ্রহন করে। এলাকা বাসীর নিজ উদ্যোগে এ খেলার আয়োজন করা হয়।

বিবাহিত বনাম অবিবাহিত কাবাডি প্রতিযোগিতায় অবিবাহিত দলকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ান হয় বিবাহিত দল। পরে চ্যাম্পিয়ান ও রানার্স-আপ টিমকে ক্রেস ও মেডেল প্রদান করা হয়। খেলা দেখতে মুন্সীগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন এলাকার লোক সমাগম হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মুন্সীগঞ্জ পৌরসভার ৫নং ওয়াড কমিশনার জনাব বাদশা সিকদারসহ এলাকার নানা শ্রেণি পেশার লোকজন। খেলাটি পরিচালনা করেন গোলজার হোসেন। আরও উপস্থিত ছিলেন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিস্ মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ।

খেলা দেখতে আসা এক দর্শক বলেন, অনেক দিন পরে কাবাডি খেলা দেখছি। অনেকটাই মজা পেলাম। এখনতো এ খেলা খেলতে দেখাই যায় না। আর সব চেয়ে ভালো লাগলো এলাকার প্রায় সবাই এসেছে । আমার মনে হয় এই খেলা প্রতি এলাকায় আয়োজন করা উচিত।

হাডুডু বা কাবাডি বাংলার অন্যতম জনপ্রিয় খেলা। বর্তমানে কাবাডি আন্তর্জাতিক ভাবেও খেলা হয়। এই খেলা সাধারণত কিশোর থেকে শুরু করে প্রাপ্তবয়স্ক সব ধরনের ছেলেরা খেলে থাকে। সাধারণত বিশেষ উৎসব বা পালা-পার্বনে বেশ আড়ম্বরপূর্ণ ভাবে হা-ডু-ডু খেলার আয়োজন করা হয়। কাবাডি বাংলাদেশের জাতীয় খেলা। বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর বাংলাদেশে কাবাডি ফেডারেশন গঠিত হয়েছে। পূর্বে কেবল মাত্র গ্রামে এই কাবাডি খেলার প্রচলন দেখা গেলেও বর্তমানে সব জায়গায় কাবাডি খেলা প্রচলিত হয়েছে। বাংলাদেশের অন্যতম জনপ্রিয় এই হাডুডু খেলা আজ আর তেমন আগের মত আমেজ নিয়ে খেলা হয় না ।

ব্রেকিংনিউজ

Comments are closed.