একই স্থানে আ’লীগের দু’পক্ষের অনুষ্ঠান : মুন্সীগঞ্জে উত্তেজনা

জাতীয় শোক দিবস
জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আজ মুন্সীগঞ্জে একই স্থানে একই সময়ে পৃথক আলোচনা সভা ও কাঙালিভোজের আয়োজন করেছেন আওয়ামী লীগের দু’পক্ষের নেতাকর্মীরা। জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন সমর্থিত এবং স্থানীয় এমপি মৃণাল কান্তি দাস সমর্থিত নেতাকর্মীরা পৃথক এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন। এদিকে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদাতবার্ষিকীর অনুষ্ঠান নিয়ে একই স্থানে পৃথকভাবে দুটি মঞ্চ তৈরি করে আলোচনা সভার আয়োজন নিয়ে আওয়ামী লীগ সভাপতি সমর্থিত ও স্থানীয় এমপি সমর্থিত নেতাকর্মীরা মুখোমুখি অবস্থানে। এর ফলে শুক্রবার থেকে শহরে আওয়ামী লীগ ও যুবলীগ নেতাকর্মীদের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে।

সরেজমিন দেখা গেছে, শুক্রবার দুপুর থেকে মুন্সীগঞ্জ শহরের থানারপুল এলাকায় জুবলি রোডে একদিকে মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের উপ-দপ্তর সম্পাদক অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাসের সমর্থকরা এবং ৫০ গজ দূরে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদ প্রশাসক মোহাম্মদ মহিউদ্দিনের সমর্থক যুবলীগ নেতাকর্মীরা পৃথক মঞ্চ তৈরির কার্যক্রম চালাচ্ছেন। এ ব্যাপারে জেলা যুবলীগের সভাপতি মো. আক্তারুজ্জামান রাজীব বলেন, প্রতি বছরের মতো এবারও জেলা যুবলীগ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদাতবার্ষিকী পালনে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। এরই অংশ হিসেবে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কার্যালয়ের সামনে অনুষ্ঠান পালন করা হচ্ছে।

অন্যদিকে আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান জেলা শাখার সভাপতি রেজাউল ইসলাম সংগ্রাম জানান, ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসের দিনে থানারপুল চত্বরে স্থানীয় এমপি মৃণাল কান্তি দাসের পক্ষে কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

সমকাল

Comments are closed.