শিমুলিয়া লঞ্চঘাটে ইজারা ছাড়াই টোল আদায়

সুমিত সরকার সুমন: পদ্মাসেতু এলাকার বিশাল আলোরম নামের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের অন্যতম প্রবেশদ্বার নৌরুট শিমুলিয়া ফেরী ও লঞ্চঘাটে এবার কোনো প্রকার ইজারা ছাড়াই বিআইডব্লিউটিএর টোল চালু করা হয়েছে। দুই বছর বন্ধ থাকার পর ফের শিমুলিয়া-কাওরাকান্দি নৌরুটে লঞ্চযাত্রীদের দুই টাকা করে টোল আদায় করা হচ্ছে।

গত বুধবার থেকে বিআইডব্লিউটিএ, লঞ্চের ক্ষেত্রে যাত্রীপ্রতি দুই টাকা করে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যে বাড়তি লঞ্চভাড়া গুনতে হচ্ছে। এর আগে শিমুলিয়া নৌরুটে নির্ধারিত লঞ্চভাড়া ৩৩ টাকা হলেও এখন এ রুটের যাত্রীদের টোলসহ মাথাপিছু ভাড়া ৩৫ টাকা করে। তবে বিআইডব্লিউটি এর দুই টাকা করে এ ঘাট টোল পৃথকভাবে ঘাটে আদায় করা হচ্ছে না। যাত্রী দুর্ভোগ কমানোর লক্ষ্যে এ টোল লঞ্চ ভাড়ার সাথে সংযুক্ত করে এক সাথে আদায় করা হচ্ছে।

এ দিকে ফেরি পারপারের গাড়ির ক্ষেত্রেও যথারীতি বিআইডব্লিউটি এর পার্কিং চার্জ ২০ টাকা ও বাসের ক্ষেত্রে ৪০ টাকা হারে ফেরি ভাড়ার সাথে এক সাথে কাউন্টার থেকে ভাড়া নেয়া হচ্ছে। তবে এ ক্ষেত্রে আগের মতো এ টোল কোনো ইজারা দেয়া হয়নি। বিআইডব্লিউটি এর নিজস্ব কর্মকর্তার উপস্থিতিতে ফেরি ভাড়ার সাথে রাজস্ব (টোল) আদায় করা হচ্ছে।

অন্য দিকে স্পিডবোট ঘাটে সম্প্রতি আদালতের নিষেধাজ্ঞার ফলে বার্জিং সিসি (কনজারভেন্সি চার্জ) আদায় আগের নিয়মেই চলছে বলে জানিয়েছেন বিআইডব্লিউটি এর বন্দর পরিচালক মাহবুবুল আলম ও সহকারী বন্দর ও পরিবহন কর্মকর্তা মোঃ মহিউদ্দিন। এ ক্ষেত্রে শিমুলিয়া কাওরাকান্দি রুটে স্পিডবোট ভাড়া মাথাপিছু ১৫০ টাকা করে নেয়া হচ্ছে।

বিআইডব্লিউটি এর বন্দর পরিচালক মাহবুবুল আলম জানান, বুধবার থেকে এ রুটের লঞ্চের ক্ষেত্রে বিআইডব্লিউটি এর দুই টাকা টোল চালু করা হয়েছে। এ ক্ষেত্রে লঞ্চভাড়া ৩৩ টাকার জায়গায় বআইডব্লিউটি এর দুই টাকা টোলসহ এক সাথে ৩৫ টাকা নেয়া হচ্ছে। এ ছাড়া ফেরি পারপারের গাড়ির ক্ষেত্রেও বিআইডব্লিউটি এর পার্কিং চার্জ ২০ টাকা ও বাসের ক্ষেত্রে ৪০ টাকা হারে ফেরি ভাড়ার সাথে কাউন্টার থেকে ভাড়া আদায় করা হচ্ছে। তবে এ ক্ষেত্রে আগের মতো এ টোল কোনো ইজারা দেয়া হয়নি।

বিডিলাইভ

Comments are closed.