বাবা ও ছেলে গ্রেপ্তার : ভুয়া পরোয়ানা!

বিনা বিচারে ১০ দিন ধরে কারাগারে
নাটোরের ভুয়া গ্রেপ্তারি পরোয়ানায় মুন্সিগঞ্জের এনাৎ হোসেন ও তাঁর ছেলে সজীব হোসেনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ১০ দিন ধরে তাঁরা কারাগারে রয়েছেন। গতকাল সোমবার ভুক্তভোগী পরিবারের পক্ষ থেকে আইনজীবী নিয়োগের পর ভুয়া গ্রেপ্তারি পরোয়ানার বিষয়টি জানা যায়।

নাটোরের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম-১ আদালত সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, এ আদালত থেকে জারি করা একটি গ্রেপ্তারি পরোয়ানামূলে গত ২৩ এপ্রিল মুন্সিগঞ্জের টঙ্গিবাড়ী থানার পুলিশ সেখানকার বেতকা বান্ধুনীবাড়ী গ্রামের এনাৎ হোসেন ও তাঁর ছেলে সজীব হোসেনকে গ্রেপ্তার করে। বর্তমানে তাঁরা মুন্সিগঞ্জ জেলা কারাগারে আছেন। গতকাল তাঁদের জামিনের জন্য এনাৎ হোসেনের আরেক ছেলে আনোয়ার হোসেন এ আদালতে আসেন। তিনি ঘটনা তদন্তে আইনজীবী আতিকুর রহমানকে নিয়োগ দেন।

আইনজীবী আতিকুর রহমান বলেন, গতকাল দুপুরেই আদালতে বাবা-ছেলের জামিনের আবেদন করা হয়। কিন্তু মুন্সিগঞ্জ থেকে গ্রেপ্তারের নথি নাটোরে না আসায় জামিনের শুনানি হয়নি।

আদালতের নথিপত্র সূত্রে জানা যায়, যে গ্রেপ্তারি পরোয়ানার ভিত্তিতে ওই বাবা-ছেলেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে, নাটোরের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম-১ আদালতে সেই কথিত পরোয়ানা সিআর-২০৭/২০১৫ নম্বরের কোনো মামলাই নেই। গ্রেপ্তারি পরোয়ানায় বিচারিক হাকিমের নাম উল্লেখ করা হয়েছে ‘শিরীন সুলতানা’। কিন্তু নাটোরে এই নামের কোনো বিচারক নেই। এ ছাড়া গত ২৫ মার্চ যে স্মারকে আদালত থেকে পরোয়ানাটি পাঠানো হয়, তা-ও ভুয়া।

প্রথম আলো

Comments are closed.