বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে জাপান শাখা আওয়ামী লীগের শ্রদ্ধা এবং প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ

রাহমান মনি: বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানিয়েছে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ জাপান শাখা। তার এক দিন পর তারা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করে তার দোয়া প্রার্থনা করতে সক্ষম হন।

৭ জানুয়ারি ২০১৫ বুধবার বেলা ১১টায় ধানমণ্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু ভবনের সামনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে জাপান শাখা আওয়ামী লীগের বর্তমান সভাপতি সালেহ্ মো. আরিফের নেতৃত্বে একদল নেতা-কর্মী পুষ্পর্ঘ অর্পণ করেন।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন জাপান শাখা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আসলাম হিরা, সহসভাপতি ফিরোজ আহমেদ, আবু হোসেন রনি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক সোহেল রানা, নির্বাহী সম্পাদক ডা. টুটুল।

এ ছাড়াও বর্তমানে বাংলাদেশে অবস্থানরত প্রাক্তন প্রবাসী নেতৃবৃন্দ উপস্থিত থেকে শ্রদ্ধা জানান। উপস্থিত ছিলেন প্রবাসী সাংবাদিক, সাপ্তাহিক টোকিও প্রতিনিধি রাহমান মনি এবং স্থানীয় মিডিয়া কর্মীরা।

ব্যানার সহকারে মিছিল করে তারা ধানমণ্ডি ৩২ নম্বরে যান। মিছিলটি ঢাকা ডেন্টাল কলেজের সামনে থেকে শুরু হয়ে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে ধানমণ্ডির ৩২ নম্বর হলে বঙ্গবন্ধু ভবনের সামনে জড়ো হয়। সভাপতি সালেহ্ মো. আরিফের নেতৃত্বে মিছিলটির অগ্রভাগে ছিলেন আবু হোসেন রনি, মোতাহার হোসেন, ডা. টুটুল, ফিরোজ আহমেদ, মানজুরুল হক, আসলাম হিরা, সোহেল রানা প্রমুখ।

মিছিল পরিচালনাসহ প্রবাসী নেতৃবৃন্দকে সহযোগিতা করেন জাপানে উচ্চশিক্ষা সম্পন্ন বর্তমানে বাংলাদেশে অবস্থানরত ডেন্টাল কলেজের শিক্ষার্থীবৃন্দ। যার অগ্রণি ভূমিকায় ছিলেন ডা. টুটুল।

৮ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর রাত ৮টায় জাপান কমিটির একটি প্রতিনিধিদল দলীয় সভানেত্রী, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কার্যালয়ে তার সঙ্গে সাক্ষাৎ করে। সভাপতি সালেহ্ মো. আরিফ প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেন। দলের অন্য সদস্যরা হলেন খন্দকার আসলাম হিরা, আবু হোসেন রনি, ফিরোজ আহমেদ, মোতাহার হোসেন, সোহেল রানা, মানজুরুল হক এবং ডা. টুটুল।

সাক্ষাৎকালে তারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শে এবং শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রতি অবিচল থেকে প্রবাসে দল পরিচালনায় দিকনির্দেশনা চেয়ে এবং শেখ হাসিনার হাতকে আরও শক্তিশালী করে প্রবাসে দল ও দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বলে কাজ করার দৃপ্ত শপথ নেন। অনেক ব্যস্ততা সত্ত্বেও প্রধানমন্ত্রী প্রবাসী নেতৃবৃন্দকে সময় দেন।

rahmanmoni@gmail.com

সাপ্তাহিক

Comments are closed.