শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় আইসিইউ’তে চাষী নজরুল ইসলাম

শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় ল্যাবএইড হাসপাতালের কেবিন থেকে বুধবার রাতে প্রখ্যাত চলচ্চিত্র নির্মাতা চাষী নজরুল ইসলামকে আইসিইউ’তে নেয়া হয়েছে। দিন দশেক আগে তাকে এ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানান চিকিৎসক সৈয়দ মোঃ আকরাম হোসেন।

চিকিৎসক আকরাম হোসেন বলেন, গত বছরের মে মাস থেকেই চাষী নজরুল ইসলাম আমার তত্ত্বাবধানে চিকিৎসাধীন। তিনি নানা রোগে ভুগছেন। কয়েকবার তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়। প্রয়োজনীয় চিকিৎসার পর কিছুটা উন্নতি দেখা দেয়ায় তিনি বাসায় চলে যেতেন। পরে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় দিন দশেক আগে আবারও তাকে হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। বুধবার রাতে হঠাৎ করেই তার শ্বাসকষ্ট মারাত্মক বেড়ে যায়।

চিকিৎসাসেবার সুবিধার্থে দ্রুত তাকে কেবিন থেকে আইসিইউতে শিফট করার সিদ্ধান্ত নিতে হয়। আইসিইউতে শুরুতে যে অবস্থা ছিল, বৃহস্পতিবার বিকালে কিছুটা উন্নতি ঘটেছে। তবে তিনি পুরোপুরি শঙ্কামুক্ত নন। এরই মধ্যে অবশ্য তাকে কেমোথেরাপি ও রেডিওথেরাপি দেয়া হয়েছে।

চাষী নজরুল ইসলাম ১৯৪১ সালের ২৩ অক্টোবর মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগর থানার সমষপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। কাজের স্বীকৃতি হিসেবে একুশে পদক পেয়েছেন গুণী এ চলচ্চিত্র নির্মাতা। স্বাধীনতার পর প্রথম মুক্তিযুদ্ধের ছবি ওরা ১১ জন পরিচালনা করে দারুণ প্রশংসিত হন তিনি। তার পরিচালিত উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রের মধ্যে আছে- ওরা ১১ জন, সংগ্রাম, দেবদাস, শুভদা, পদ্মা মেঘনা যমুনা, হাঙর নদী গ্রেনেড, হাছন রাজা, মেঘের পরে মেঘ, শাস্তি, সুভা ইত্যাদি।

বাংলাপোষ্ট

Comments are closed.