‘অবরুদ্ধ’ খালেদাকে দেখতে এসে আবারো ফিরে গেলেন বি. চৌধুরী

আবারো গুলশানে ‘অবরুদ্ধ’ কার্যালয়ের সামনে থেকে ফিরে গেলেন বিকল্প ধারা বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট ও সাবেক রাষ্ট্রপতি অধ্যাপক বদরুদ্দোজা চৌধুরী। রাত ৭টা ২৫ মিনিটে পাজারো গাড়িতে চড়ে বি. চৌধুরী ৮৬ নং সড়কে খালেদা জিয়ার কার্যালয় থেকে ১০০ গজ দূরে সড়কের ওপরে আড়াআড়িভাবে জলকামানের গাড়ি দিয়ে ব্যারিকেড না উঠানোয় ক্ষোভ প্রকাশ করে ফিরে যান তিনি।

তিনি ক্ষোভের সুরে আঙ্গুল উঁচিয়ে বলেন,‘এটা কোন ধরনের অসভ্যতা। বেজ্জতির একটা সীমা আছে। এই গাড়ি সরাতে হবে। আমি এক মিনিট সময় দিচ্ছি, যদি এর মধ্যে সরানো না হয়, চলে যাবো।’

‘আই উইল নট গো ওয়াকিং অন ফুট। এই গাড়িটি সরাতে হবে।’

হলুদ জলকামানের গাড়িটি কয়েকদিন ধরে আড়াআড়িভাবে সড়কের ওপর রেখে রাস্তায় যান চলাচল বন্ধ করে রাখা হয়েছে।

সাবেক রাষ্ট্রপতি অধ্যাপক বি. চৌধুরী গাড়ির পাশে দাঁড়ানো একজন পুলিশ কর্মকর্তাদের ডাক দিলেও তিনি তার ডাকে সাড়া দেননি।

হাত উঁচু করে তিনি বলেন, ‘কাম ওন। কে আছেন পুলিশ অফিসার। এখানে আসুন। আমি এক মিনিট সময় দিচ্ছি।’

পরে সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘আমি একজন সাবেক রাষ্ট্রপতি। রোববারও আমি এসেছিলাম। একই অবস্থা করেছে তারা। আজো তারা একই কাজ করলো।’

‘আমি একজন সিনিয়র সিটেজেন। আমি একজন চিকিৎসক। চিকিৎসক হিসেব এসেছিলাম।’

গত রোববার সকালে গুলশানের অবরুদ্ধ কার্যালয়ে পুলিশি বাঁধার কারণে খালেদা জিয়ার সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে পারেননি সাবেক এই রাষ্ট্রপতি। ওই সময়ে তিনি বিএনপি চেয়ারপারসনকে এভাবে অবরুদ্ধ করে রাখার জন্য সরকারি নীতির কঠোর সমালোচনা করেন।

শীর্ষ নিউজ

Comments are closed.