লৌহজং স্বাস্থ্য কেন্দ্রের অভ্যন্তরে মাদক সেবীদের উৎপাত

মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রের অভ্যন্তরে মাদক সেবীদের উৎপাত বেড়ে গেছে। এক শ্রেনীর বখাটে উঠতি বয়সের লোকজন স্বাস্থ্য কেন্দ্রের কম্পাউন্ডের অভ্যন্তরে বসে মাদক বেচা-কেনা ও সেবন করছে। বুধবার উপজেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির সভায় স্বাস্থ্য কর্মকর্তার এ রকম বক্তব্যে সভায় সদস্যদের মধ্যে উদ্বেগ সৃষ্টি হয়। যতদ্রুত সম্ভব এসব মাদক সেবীদের ধরে আইনের আওতায় আনার আহবান জানান বক্তাগন। এছাড়া শিমুলিয়ার নতুন ফেরি ঘাটে বিভিন্ন শ্রমিক সংগঠনের নামে চাঁদা আদায় করে এলাকার ভাবমূর্তি নষ্টসহ আইন শৃঙ্খলার অবনতির আশঙ্কা করা হয়। এসব চাঁদাবাজি বন্ধে পুলিশের প্রতি আহবান জানানো হয়। এছাড়া বাল্য বিবাহ, মাদক নিয়ন্ত্রণ, ইভটিজিং-এর প্রতি গুরুত্ব আরোপ করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থ্যা গ্রহনের সিদ্ধান্ত হয় ওই সভায়।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. খালেকুজ্জামানের সভাপতিত্বে বৌলতলী ইউপি মিলনায়তনে এ সভায় বক্তব্য রাখেন লৌহজং উপজেলা চেয়ারম্যান মো. ওসমান গণি তালুকদার, ভাইস চেয়ারম্যান জাকির হোসেন বেপারী জেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি তোপাজ্জল হোসেন, লৌহজং উপজেলা আওযামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল রশিদ সিকদার, এ্যাড. নাছিমা আক্তার, এ্যাড. সামসুন্নাহার শিল্পী, বিক্রমপুর প্রেস ক্লাব সভাপতি মো. মাসুদ খান, কনকসার ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ প্রমূখ।

বিক্রমপুর চিত্র