নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে স্ত্রীর মামলায় স্বামী গ্রেফতার

মুন্সীগঞ্জে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে স্ত্রীর দায়ের করা মামলায় স্বামী জান শরীফকে গ্রেফতার করেছে সদর থানা পুলিশ। বুধবার বিকেল ৩টার দিকে শহরের মানিকপুর এলাকা থেকে ওয়ারেন্টভুক্ত এ আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

এদিকে স্বামী জান শরীফকে গ্রেফতার করার পর থেকে তার ভাই মারফত চৌধুরী বাদী নারগিস বেগমকে (২৩) মামলা উঠিয়ে নিতে বিভিন্ন হুমকি-ধমনি দিচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা যায়, ২০১৩ সালের জানুয়ারি মাসে শরীয়তপুর এলাকার মনসুর আলীর ছেলে জান শরীফের সঙ্গে প্রেমের সর্ম্পক থাকায় বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয় মুন্সীগঞ্জ শহরের নয়াগাওঁ এলাকার মৃত নুর মোহাম্মদের মেয়ে নারগিস। বিয়ের পর পাঁচ মাস গর্ভাবস্থা থাকা অবস্থায় স্বামী জান শরীফ তাকে ফেলে রেখে আত্মগোপনে চলে যায়। দীর্ঘদিন পর তার খোঁজ পায় স্ত্রী। পরে যোগাযোগ করলে নারগিসকে স্ত্রী হিসেবে অস্বীকার করে শরীফ।

নারগিস বেগম সাংবাদিকদের জানান, নুসরাত নামের আমার একটি মেয়ে সন্তান জন্ম হয়। যার বর্তমান বয়স ৩ মাস। বহুবার জান শরীফের সঙ্গে যোগাযোগ করি কিন্তু সে আমাকে ও সন্তানকে অস্বীকার করে।

তিনি আরো জানান, বিভিন্ন দিক ছুটাছুটি করে অবশেষে ভরণ-পোষণ না দেওয়ায় মুন্সীগঞ্জ আদালতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করি। গৃহবধূ অভিযোগ করে বলেন, জান শরীফকে গ্রেফতার করার পর থেকে তার ভাই মারফত চৌধুরী নানাভাবে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে।

সদর থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এসআই) রাম প্রশাদ জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি জান শরিফকে গ্রেফতার করা হয়।

শীর্ষ নিউজ