টঙ্গীবাড়ী উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তাদ্বয়ের অফিস ফাঁকি

মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা হামিদা বেগম এবং মেডিকেল আফিসার (এমসিএইচ-এপপি) ডা. আঞ্জুমান আরা খানকে সপ্তাহে ১ দিনের বেশি অফিসে পাওয়া যায়না। সাংবাদিকরা গত সপ্তাহে ২ দিন এবং সোমবার সরেজমিনে উক্ত ২ কর্মকর্তার অফিসে গেলে তাদের পাওয়া যায়নি।

নাম প্রকাশে অন-ইচ্ছুক টঙ্গীবাড়ী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্র ভবনের একাধিক কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা জানান, এই দুই কর্মকর্তা সপ্তাহে একদিনের বেশি অফিস করেন না। আঞ্জুমান আরাকে মাসে ৪ দিনও অফিসে পাওয়া যায় না। এছাড়াও আঞ্জুমান আরা মহিলা বন্ধ্যাকরণ অপারেশন করার কথা থাকলেও তিনি তা করেন না। কখনো এফডব্লিউসি পরিদর্শনে জাননা।

এছাড়া উপজেলার সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার পরিবার পরিকল্পনা পরিদর্শীকারা অফিস চলাকালিন সময়ে রোগীদের কাছ হতে টাকা আদায় করলেও তিনি কোন ব্যাবস্থা নিচ্ছেন না। এ ব্যাপারে তার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমার কাছে মৌখিক অভিযোগ করলে হবেনা কেউ লিখিত অভিযোগ করে নাই।

নিয়মিত অফিসে অনুপস্থিতির কারন জানতে চাইলে বিষয়টি এড়িয়ে গিয়ে বলেন, আপনি যে কারনে ফোন করেছেন সে বিষয়টি বলেন। হামিদা বেগমের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমি ফিল্ডে আছি পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তারা সব সময় অফিসে থাকেনা। এ ব্যাপারে পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের উপ-পরিচালক গাজী মো. মোস্তাফা কামাল জানান, আমি বিষয়টি দেখছি ।

বাংলাএক্সপ্রেস

Comments are closed.