আলোচিত সন্ত্রাসী শাহজালালের ১২ দিনের রিমান্ড

মুন্সীগঞ্জে সময়ের আলোচিত শীর্ষ সন্ত্রাসী ১০ মামলার আসামী যুবলীগ কর্মী মো. শাহজালাল মিজির (২৭) রিমান্ড শুনানীর দিন ধার্য্য করা হয়েছে আগামী রবিবার ও সোমবার। অস্ত্র মামলায় ৭ দিন ও অপহরণ এবং চাঁদাবাজি মামলায় ৫ দিনের রিমান্ড চেয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল ৪ টার তাকে আদালতে প্রেরণ করা সদর থানা পুলিশ।

মুন্সীগঞ্জ কোর্ট ইন্সপেক্টর মো. কুদ্দুসুর রহমান সিকদার শুক্রবার বিকেল সাড়ে ৪ টার দিকে জানান, বৃহস্পতিবার বিকেলে আদালতে প্রেরণ করায় তার রিমান্ড শুনানী হয়নি। অস্ত্র মামলায় রবিবার ও অপহরণ এবং চাঁদাবাজি মামলায় সোমবার রিমান্ড শুনানীর দিন ধার্য্য করা হয়েছে। এতে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় সন্ত্রাসী শাহজালাল মিজিকে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মুন্সীগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)-তদন্ত মো. ইয়ারদৌস হাসান জানিয়েছিলেন, বৃহস্পতিবার ভোরে তাকে মানিকপুর সড়ক থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। থানা হেফাজতে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে সন্ত্রাসী মো. শাহজালাল মিজিকে সঙ্গে নিয়ে শহরের বিভিন্নস্থানে আগ্নেয়াস্ত্র উদ্ধারের লক্ষ্যে অভিযানে যায় পুলিশ।
এর পূর্বে বৃহস্পতিবার সকাল ৮ টার দিকে ঢাকা-মুন্সীগঞ্জ সড়কে শহরের লিচুতলা নামক বাস স্ট্যান্ডে ৭ টি বাস-অটোরিক্সা ভাঙ্গচুর করে যুবলীগ কর্মীরা। ফলে সকাল ৮ টা থেকে ১০ টা পর্যন্ত যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকে। পরে যাত্রী পারাপারে পুরাতন বাসস্ট্যান্ডে বাস কাউন্টার সরিয়ে এনে বাস চলাচল স্বাভাবিক রাখা হয়। ওই সন্ত্রাসীর বিরুদ্ধে সদর থানায় অস্ত্র, অপহরণ, মাদক ও চুরিসহ ১০ টি মামলা রয়েছে।

এছাড়া, গ্রেপ্তারকৃত মো. শাহজালাল জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আলহাজ্ব মোহাম্মদ মহিউদ্দিনের শেল্টারে চাঁদাবাজি ও অপহরণসহ নানা রকম সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে। জেলার শীর্ষ সন্ত্রাসী, আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহারকার এবং গ্রেপ্তারকৃত মো. শাহজালাল মিজির সহযোগিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলেও নিশ্চিত করেছেন পুলিশের ওই কর্মকর্তা।

এবিনিউজ

Comments are closed.