দুর্গাবাড়িতে সম্পত্তির বিরোধে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১২

sssss

সম্পত্তি নিয়ে বিরোধের জের ধরে বুধবার মুন্সীগঞ্জ সদরে দু’গ্রুপের মধ্যে হামলা ও সংঘর্ষে নারীসহ অন্তত ১২ জন আহত হয়েছে। এ সময় ১ টি অটোরিকশার গ্যারেজ ভাংচুর করে প্রতিপক্ষ। দুর্গাবাড়ি গ্রামে বুধবার বেলা সাড়ে ১০ টা থেকে সাড়ে ১১ টা পর্যন্ত কাদের সৈয়াল ও মো: আলমগীর হোসেনের দু’গ্রুপের মধ্যে এ হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

আহতদের মধ্যে মো: আলমগীর হোসেন (৩৩), তার বাবা খলিল মাতবর (৮০), মা শিরিন বেগম (৭০), ভাড়াটিয়া ঝর্ণা বেগম (২৮) ও আমিনুল ইসলাম বাবুলকে (৫০) মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অপর আহতদের বিভিন্ন প্রাইভেট ক্লিনিকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

সদর থানার এসআই মো: সৈকত জানান, দুর্গা বাড়ি গ্রামের কাদের সৈয়ালের কাছ থেকে একই গ্রামের মো: আলমগীর হোসেন ৫-৬ বছর আগে ১৮ শতক জমি কিনেন। দীর্ঘ দিন পর ওই সম্পত্তিতে বসবাস করতে গেলে জমির বিক্রেতা কাদের সৈয়ালের ছেলেদের সঙ্গে বিরোধ বাঁধে। দীর্ঘ দিনের ওই বিরোধের জের ধরে বুধবার সকালে কাদের সৈয়ালে ছেলে মাসুম সৈয়ালের নেতৃত্বে ১২-১৩ জন লোক সম্পত্তির ক্রেতা আলমগীর হোসেনের অটোরিকশা গ্যারেজে হামলা চালায়।

এ সময় গ্যারেজে ভাংচুর চালালে দু’গ্রুপের লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষের সূত্রপাত হয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে। এ ঘটনায় আহত আলমগীর সদর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

বিডিলাইভ
=======

মুন্সীগঞ্জে ভূমি সংক্রান্ত বিরোধে দুগ্রুপের সংঘর্ষে আহত ১২

মুন্সীগঞ্জে ভূমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে দুগ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় নারীসহ কমপক্ষে ১২ জন আহত হয়েছে। এ সময় একটি অটোরিক্সার গ্যারেজ ভাংচুর করে প্রতিপক্ষের লোকজন। বুধবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে কাদের সৈয়াল ও মো. আলমগীর হোসেনর মধ্যে ঘন্টাব্যাপি এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এ সময় দুগ্রুপের সংঘর্ষে আহত হয়েছেন, মো. আলমগীর হোসেন (৩৩), তার বাবা খলিল মাতবর (৮০), মা শিরিন বেগম (৭০), ভাড়াটিয়া ঝর্ণা বেগম (২৬) ও আমিনুল ইসলাম বাবুল (৫০)। তাদের মুন্সীগঞ্জ সদর জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়ার পর ভর্তি করা হয়েছে। অপর আহতদের বিভিন্ন প্রাইভেট ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, শহরের উপকন্ঠ পঞ্চসার ইউনিয়নের দূর্গাবাড়ী গ্রামের কাদের সৈয়াল থেকে মো. আলমগীর হোসেন ৬ বছর পূর্বে ১৮ শতাংশ ভূমি খরিদ করেন। দীর্ঘ ৬ বছর পর ওই খরিদা সম্পত্তিতে বসবাস করতে গেলে জমি বিক্রেতার ছেলেদের সঙ্গে জমির খরিদা মালিকের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। দীর্ঘ দিনের ভূমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে আজ বুধবার সকালে জমি বিক্রেতা কাদের সৈয়াল তার ছেলে মাসুম সৈয়ালের নেতৃত্বে ১০/১২ জন সন্ত্রাসী জমির খরিদা মালিক মো. আলমগীর হোসেনের অটোরিক্সার গ্যারেজে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করে।

সূত্র আরও জানায়, এ সময় গ্যারেজ মালিক মো. আলমগীর হোসেন সন্ত্রাসীদের বাঁধা দিলে দু’গ্রুপের লোকজনের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ ছড়িয়ে পরে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। ফের সংঘর্ষের ঘটনা এড়াতে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এ ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে মুন্সীগঞ্জ সদর থানার একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে মুন্সীগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)-তদন্ত মো. ইয়ারদৌস হাসান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

এবিনিউজ

Comments are closed.