শ্রমিকের পরিবার ক্ষতিপূরণ পাবে ৬১ লাখ টাকা

3malasiyaমালয়েশিয়ায় নির্মাণাধীন ফ্লাইওভারের খুলে পড়া স্প্যানের নিচে চাপা পড়ে নিহত তিন বাংলাদেশির প্রত্যেকের পরিবারকে ২৫ হাজার মালয়েশিয়ান রিঙ্গিত বা প্রায় ৬১ লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেবে দেশটির সরকার। সোমবার কুয়ালামপুরে পেশাগত নিরাপত্তা ও স্বাস্থ্যবিষয়ক একটি সম্মেলন উদ্বোধন শেষে মালয়েশিয়ার মানবসম্পদমন্ত্রী রিচার্ড রায়ত একথা বলেন। দেশটির ইংরেজি দৈনিক স্টার অনলাইনের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

রিচার্ড রায়ত বলেন, ‘আমরা বাংলাদেশ দূতাবাসের মাধ্যমে নিহত তিনজনের পরিবারের সঙ্গে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখছি। যাচাই-বাছাই শেষে আমরা ওই অর্থ তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করব।’ গত ১৮ জুলাই মালয়েশিয়ার কোতা দামানসারা এলাকায় সুংগাই বুলু নামক স্থানে নির্মাণাধীন ফ্লাইওভারের ভারি স্প্যানের নিচে চাপা পড়ে তিন বাংলাদেশি শ্রমিক মারা যান।
3malasiya
সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা যায়, প্রায় সাড়ে ৬০০ টন ওজনের কংক্রিটের তৈরি একটি স্প্যান আড়াআড়িভাবে স্থাপিত কাঠামোর ওপর তোলার সময় হঠাৎ নিচে পড়ে গিয়ে এ দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনায় নিহত ব্যক্তিরা হলেন— পাবনার আবদুস সাত্তারের ছেলে মোহাম্মদ এলাহী হোসেন, শাহাদাত মল্লিকের ছেলে আলাউদ্দিন ও মুন্সিগঞ্জের কাশেম খানের ছেলে ফারুক খান।

গত বৃহস্পতিবার বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের একটি ফ্লাইটে তাদের মরদেহ ঢাকায় আসে। শ্রমিকেরা যে কোম্পানিতে কাজ করতেন, সেই প্রতিষ্ঠানের একজন কর্মকর্তাও ওই বিমানে আসেন। কোম্পানির পক্ষ থেকে নিহত প্রত্যেকের পরিবারকে পাঁচ হাজার ৯০০ ডলার করে দেওয়া হয়েছে।

স্বদেশ