সিরাজদিখানে বিএনপি ও যুবলীগ মুখোমুখি অবস্থানে

সড়ক নির্মানকে কেন্দ্র করে
জাহাঙ্গীর খান বাবু: সিরাজদিখানে জেলা পরিষদের সড়ক নির্মানকে কেন্দ্র করে বিএনপির ও যুবলীগ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের অবস্থান নেয়াকে কেন্দ্র করে বুধবার তীব্র উত্তেজনা বিরাজ করছে। ফলে রাস্তার নির্মান কাজ সাময়িকভাবে বন্ধ হয়ে পরে।

পরে উপজেলার চেয়ারম্যান ও বিএনপি নেতৃবৃন্দের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে প্রশাসনের হস্তক্ষেপে পুনরায় রাস্তা নির্মান কাজ শুরু হয়।

সিরাজদিখান উপজেলার সংশ্লিষ্ঠ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, জেলার শ্রীনগর উপজেলার সিমপাড়া ও সিরাজদিখান উপজেলার কোলা গ্রামের সড়কটির ঠিকাদার জীবন ইসলাম প্রায় ৬৫ লাখ টাকা ব্যায়ে সড়ক সংস্কার কাজের জন্য স্থানীয় বিএনপি নেতা ও কোলা ইউপি চেয়ারম্যান মীর লিয়াকত আলীসহ যুবদলের নেতাকর্মীদের দায়িত্ব দেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে ইউনিয়ন যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা নির্মানকাজ বন্ধ করে দেন। তাদের অভিযোগ স্থানীয় বিএনপি ও যুবদলের নেতারা এই সড়কের নির্মানকাজে অনিয়ম করে সরকারের ভাবমুর্তি ক্ষন্ন করতে তৎপর একারনেই তারা নির্মানকাজে বাধা দিয়েছে।

অপরদিকে সিরাজদিখান উপজেলার চেয়ারম্যান মহিউদ্দি আহমেদ জানিয়েছেন, দুই দলের মধ্যে ভুলবোঝা বুঝির কারনে এলাকায় সাময়িক উত্তেজনা বিরাজ করলেও সড়কটির নির্মানকাজ চলছে।

এদিকে কোলা ইউনিয়নের বাসিন্দারা জানিয়েছে, সড়কটির নির্মানকাজের সাথে জড়িত ঠিকাদারের লোকজন সড়ক নির্মানের জন্য স্থানীয় টাউটদের পাহাড়ার সড়কের জন্য পার্শবর্তী কৃষিজমির মাঠি খননের কাজ করছে। তারা অনুমোতি ছাড়াই অন্যের জমির মাটি বলপ্রয়োগ করে কেটে রাস্তায় ভরাট কাজ চালিয়ে যাচ্ছে যা সম্পুন্ন বে-আইনী ভাবেই করছে। ফলে এই টাইটদের প্রতিহত করতে এলাকাবাসী একাট্টা হয়ে কাজ করছে।