গজারিয়ার গরু ব্যবসায়ী নারায়ণগঞ্জে নিখোঁজ

samনারায়ণগঞ্জের চিটাগাং সড়ক থেকে নিখোঁজ হয়েছেন মো. সুবেদ আলী মোল্লা (৪৫) নামে মুন্সীগঞ্জের এক গরু ব্যবসায়ী। তার ছেলে মো. সৌরভ মোল্লা (১৮) রবিবার সকালে জেলার গজারিয়া থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন। ডায়েরি নম্বর-২৮।

নিখোঁজ সুবেদ আলী গজারিয়া উপজেলার মল্লিকের চর গ্রামের আবুল কাশেম মোল্লার ছেলে।

গজারিয়া থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) মো. আমিনুল জানান, ২৯ এপ্রিল বেলা ১২টার দিকে নারায়ণগঞ্জের চিটাগাং সড়কে একটি যাত্রীবাহী বাস থেকে তিনি নিখোঁজ হন।

স্বজনরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করেও তার সন্ধান পাচ্ছে না। এমতাবস্থায় ওই গরু ব্যবসায়ীর পরিবার উদ্বেগ-উৎকণ্ঠায় দিন কাটাছেন।

ছেলে সৌরভ বলেন, ‘২৯ এপ্রিল গরু কিনতে বাবা ফরিদপুরের টেপাখোলার উদ্দেশে বাড়ি থেকে বের হন। ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের গজারিয়ার ভবেরচর বাসস্ট্যান্ড থেকে বাসযোগে রওনা দিয়েছিলেন তিনি। পথিমধ্যে বেলা ১২টার দিকে নারায়ণগঞ্জের চিটাগাং সড়কে পৌঁছলে বাবার সঙ্গে মোবাইল ফোনে আমি কথা বলি। কিছুক্ষণ পর বাবার সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করলে নম্বরটি বন্ধ পাই।’

তিনি বলেন, ‘এরপর থেকে বাবা নিখোঁজ রয়েছেন। তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোন নম্বরটি (০১৮৩৮-৭৩২৮৩১) বর্তমানে বন্ধ রয়েছে।’

দ্য রিপোর্ট

==============

এবার গজারিয়ার গরু ব্যবসায়ী নারায়ণগঞ্জ থেকে নিখোঁজ!

এবার নারায়ণগঞ্জের চিটাগাংরোড থেকে নিখোঁজ হয়েছেন সুবেদ আলী মোল্লা (৪৫) নামে মুন্সীগঞ্জের এক গরু ব্যবসায়ী। নিখোঁজের ছেলে সৌরভ মোল্লা (১৮) রোববার সকালে জেলার গজারিয়া থানায় এ ব্যাপারে একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছে। ডায়েরি নম্বর ২৮।

নিখোঁজ সুবেদ আলী গজারিয়া উপজেলার মল্লিকের চর গ্রামের আবুল কাশেম মোল্লার ছেলে।

গজারিয়া থানার এএসআই মো. আমিনুল জানান, গত ২৯ এপ্রিল বেলা ১২টার দিকে নারায়ণগঞ্জের চিটাগাংরোডের একটি যাত্রীবোঝাই বাস থেকে তিনি নিখোঁজ হন।

স্বজনরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করেও তার সন্ধান পাচ্ছে না। এমতাবস্থায় ওই গরু ব্যবসায়ীর পুরো পরিবার উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার মধ্যে দিন যাপন করছেন। ছেলে সৌরভের দাবি অনুযায়ী, মুন্সীগঞ্জের গজারিয়ার নিজ বাড়ি থেকে বের হয়ে ফরিদপুরের টেপাখোলা যাওয়ার উদ্দেশে গরু কেনার জন্য সুবেদ আলী ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক পথে গজারিয়ার ভবেরচর বাসস্ট্যান্ড থেকে বাসযোগে রওনা দিয়েছিলেন। পথে বেলা ১২টার দিকে নারায়ণগঞ্জের চিটাগাংরোডে পৌঁছলে সুবেদ আলীর সঙ্গে মোবাইল ফোনে কল করে কথা বলেন তার ছেলে। এর কিছুক্ষণ পর বাবার সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করলে নাম্বারটি বন্ধ পাওয়া যায়।

এরপর থেকে গরু ব্যবসায়ী সুবেদ আলী বাড়িতে ফেরেননি এবং ফরিদপুরেও গরু কিনতে যাননি। সুবেদ আলীর ব্যবহৃত মোবাইল ফোন নাম্বারটি (০১৮৩৮-৭৩২ ৮৩১) তখন থেকেই বন্ধ রয়েছে।

শীর্ষ নিউজ