আবারো গজারিয়ার ওসি বদল

Policeগজারিয়া উপজেলা নির্বাচনের বন্ধ ৯ ভোট কেন্দ্রের পুন:ভোটের একদিন আগেই গজারিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে আবারো বদলির সম্মতি দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। পুলিশ সদর দপ্তরের আবেদনের ভিত্তিতে মঙ্গলবার ইসি এ সম্মতি দেয়।

সিরাজদিখান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) আবুবক্কর সিদ্দিকী পিপিএমকে গজাররিয়ায় পাঠানো হয়েছে। অন্যদিকে গজারিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) ফরিদ উদ্দীনকে মুন্সীগঞ্জ পুলিশ লাইনে ক্লোজ করা হয়েছে।

এর আগে ২৩ মার্চের চতুর্থ ধাপের উপজেলা নির্বাচনে সহিংসতা, দায়িত্ব অবহেলা ও ভোট কারচুপির অভিযোগে গত ২৮ মার্চ গজারিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মামুনুর রশীদকে ক্লোজড করা হয়। একই সঙ্গে মুন্সীগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. হাবিবুর রহমানকে ৭ দিনের ছুটিতে পাঠানো হয়।

নির্বাচন কমিশনের নির্দেশনা অনুযায়ী স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ সিদ্ধান্ত নেয় বলে মুন্সীগঞ্জ পুলিশ সূত্রে জানা যায়। বর্তমানে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জাকির হোসেন মজুমদার ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপারের দায়িত্ব পালন করেন।

ওসি মামুনুর রশীদকে মুন্সীগঞ্জ পুলিশ লাইনে সরিয়ে আনা হয় এবং গজারিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. ফরিদউদ্দিনকে ওসির দায়িত্ব দেওয়া হয়।

গত ২৩ মার্চ গজারিয়া উপজেলার নির্বাচনী সহিংসতায় ইউপি চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা সামসুদ্দিন প্রধান, ছাত্রলীগ নেতা মাহাবুবুর রহমান জোটন ও বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী আব্দুল মান্নান দেওয়ান মনার স্ত্রী লাকি বেগম নিহত ও প্রায় ৪০ জন আহত হন।

বৃহস্পতিবার রাতে গুলিবিদ্ধ লাকির মৃত্যুর খবরে এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। অপ্রীতিকর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে গজারিয়ায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। সকাল থেকেই জেলা প্রশাসক মো. সাইফুল হাসান বাদল গজারিয়ায় অবস্থান করছেন। এ নির্বাচনে গজারিয়া উপজেলায় ৪৫টি কেন্দ্রের মধ্যে সহিংসতা ও অনিয়মের কারণে ৯টি কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ বাতিল করা হয়। তাই এ উপজেলার ফল স্থগিত রয়েছে।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর