চাঁদা না দেয়ায় সংখ্যালঘুদের বাড়িতে হামলা : জমি দখল

dakhalমুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে চাঁদা না দেয়ায় সংখ্যালঘুদের বাড়িতে সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে হামলা চালিয়েছে স্থানীয় এক ভূমি দস্যু। এ সময় ভূমি দস্যুরা দখল করে নিয়েছে সংখ্যালঘুদের ফসলি জমি। এক পর্যায়ে আত্মরার জন্য ওই পরিবারের লোকেরা পাশ্ববর্তী লৌহজং থানার একটি গ্রামে আশ্রয় নিয়েছে।

এ ব্যাপারে গত ২১ মার্চ শ্রীনগর থানায় লিখিত অভিযোগ করা হলেও থেমে নেই ওই সন্ত্রাসীদের তৎপরতা।এ ঘটনায় চরম নিরাপত্তাহীনতায় আতঙ্কিত হয়ে দিন কাটাচ্ছেন ঐ পরিবার।

জানা গেছে, গত শুক্রবার বিকালে দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবী করে উপজেলার মধ্য হাসারা গ্রামের ভূমি দস্যু শাহ আলম শেখ একই গ্রামের নাগের পাড়ের সুনিল মন্ডলের স্ত্রী রানী মন্ডলের জমি দখল করে নেয়। দীর্ঘ দিন যাবত শাহ আলম চাঁদা চেয়ে তাকে ও তার পরিবারের লোকদের মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে আসছে।

এ বিষয়ে গত শুক্রবার বরুন শ্রীনগর থানায় লিখিত অভিযোগ করলে শাহ আলম প্তি হয়ে ১৫/২০ জন সন্ত্রাসী নিয়ে তার বাড়ি সংলগ্ন ৩৫ শতাংশ জমি দখল করে নেয়। তাৎক্ষণিকভাবে প্রতিবাদ করলে সন্ত্রাসীরা বাড়িতে হামলা চালিয়ে পরিবারের সবাইকে মেরে ফেলাসহ বাড়ি ঘর জ্বালিয়ে দেয়ার হুমকি দেয়।

স্থানীয়রা জানিয়েছে, শাহ আলম এলাকায় জমি দখল, চাদাবাজি, ভেজাল তেল ও মাদক ব্যবসাসহ অনেক অপকর্মের সাথে জড়িত। তার ভয়ে কেউ মুখ খুলতে সাহস পায় না।উক্ত ঘটনায় সংখ্যালঘু পরিবারটি জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে র‌্যাব-১১ এর স্থানীয় কার্যালয়ে একটি আবেদন করলে শনিবার র‌্যাব কর্মকর্তা আনসার আলী ঘটনা স্থল পরিদর্শন করেন।

এ বিষয়ে শাহ আলমের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, বরুনদের সাথে তার কোন বিরোধ নেই।এ ধরনের কোন ঘটনা আমার সাথে হয়নি।

অপরদিকে সুনিল মন্ডলের পুত্র বরুন অভিযোগ করে জানান, ঘটনার পর থেকে আত্মরার জন্য আমরা পাশ্ববর্তী লৌহজং থানার একটি গ্রামে আশ্রয় নিয়েছি। এ ব্যাপারে গত ২১ মার্চ শ্রীনগর থানায় অভিযোগ করা হলেও থেমে নেই সন্ত্রাসীদের তৎপরতা।এ ঘটনায় চরম নিরাপত্তাহীনতায় আতঙ্কিত হয়ে দিন কাটাচ্ছেন ঐ পরিবার ।

শ্রীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জানান, এ বিষয়ে থানায় একটি জিডি হয়েছে। জিডি নং ১০২২বিষয়টি তদন্ত করা হচ্ছে বলে জানান।