মুন্সীগঞ্জ মাদকে সয়লাব!

drugsমুন্সীগঞ্জে মাদক সয়লাব নিয়ে আলোচনার পর, তা বন্ধে পুলিশে কার্যকরী ভূমিকাসহ আরও কঠোর হওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। মঙ্গলবার জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা আইন শৃঙ্খলা কমিটির সভায় এই সিদ্ধান্ত হয়। স্হানীয় সংসদ সদস্য এ্যাডভোকেট মৃনাল কান্তি দাস বলেন, এসপি সাহেবের বাসার সামনের স্টেডিয়ামে সন্ধ্যার পর গাঁজার গন্ধে কাছে যাওয়া যায়না। জমিদারপাড়ার পানির ট্যাঙ্কসহ শহরের কয়েকটি স্হান মাদকের স্পট।

মাদকের ব্যাপারে ক্ষমাতো দূরের কথা, যত বেশী কঠোর হওয়া যায় তাই করতে হবে। কোন রাজনীতিক এ ব্যাপারে তদবির করবে না। কেউ তদবির করলেও তা গ্রহণ করা যাবে না। জাতিকে রক্ষায় এটা করতেই হবে। এছাড়া সভায় ঘন ঘন ডাকাতি, বঘরায় চলন্ত বাস থামিয়ে যুবলীগ নেতাকে গুলি, শহরে মশার উৎপাত, যানজট, আইনজীবী হত্যা, আসন্ন উপজেলা নির্বাচন, চরাঞ্চলে কৃষকের আলু উত্তোলনে কোন সমস্যা না হওয়ার বিষয়ে আলোচনা হয়।

জেলা প্রশাসক মো. সাইফুল হাসান বাদলের সভাপতিত্বে আলোচনায় আরো অংশ নেন এডিএম নজরুল ইসলাম সরদার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জাকির হোসেন মজুমদার, জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক আলহাজ শেখ লুৎফর রহমান, গজারিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান রেফাতেউল্লাহ খান তোতা, জগলুল হালদার ভুতু, মো. জামাল হোসেন, এ্যাডভোকেট একেএম নাসিরুজ্জামান খান, এ্যাডভোকেট অজয় চক্রবর্তী, অধ্যাপক আবুল বাসার, আফসারউদ্দিন ভূইয়া ও প্রেসক্লাব সভাপতি মীর নাসিরউদ্দিন উজ্জ্বল প্রমুখ।

স্বদেশ