লিঙ্কনের লাশ উদ্ধারের ঘটনায় বিক্ষোভ

linkonPratibadআরো ২ দর্জি শ্রমিক নিখোঁজ ॥ অফিসগামী মানুষের চরম দূর্ভোগ
দর্জি কর্মী লিংকন শেখ (১৮) খুনের ঘটনায় খুনীদের ফাঁসির দাবীতে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে মুন্সীগঞ্জ শহরের উপকন্ঠ শাখারী বাজার থেকে পঞ্চসার মোড় পর্যন্ত ২ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে দীর্ঘ বিক্ষোভ মিছিল করেছে গ্রামবাসী। পরে সদর থানা ঘেরাও করতে থানায় আসার পথিমধ্যে মিছিলটিকে পুলিশ বাধাঁ দিয়ে আটকে দেয় ।

এ দিকে শাখারী বাজার এলাকার আরো ২ দর্জি শ্রমিক ৪ দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছে। তারা হচ্ছেন- শেখ জয় (২২) ও মানিক মিয়া (২০)। নিখোঁজ জয় শাখারী বাজারের রিপন শেখের ও অপর নিখোঁজ মানিক মিয়া হচ্ছেন সেখানকার জানু মিয়ার ছেলে।
linkonPratibad
ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে সদর থানার ওসি-(তদন্ত) মো: ইয়ারদৌস হাসান জানান, নিখোঁজের ৩ দিনের সময় গত বুধবার দুপুরে শাখারী বাজার এলাকার পুকুর থেকে দর্জি কর্মী লিংকন শেখের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ওই ঘটনায় খুনীদের ফাঁসির দাবীতে মিছিল করে নারী-পুরুষ।

তিনি দাবী করেন, গত রোববার সন্ধ্যায় বন্ধুদের সঙ্গে ঘুরতে বাইরে বেরুলে দর্জি কর্মী লিংকন নিখোঁজ হয়। তবে লিংকনের সঙ্গে আরো ২ দর্জি কর্মীও নিখোঁজ রয়েছে বলে দাবী গ্রামবাসী ও তাদের পরিবারের।

এটিএনবিডি

=============

লিঙ্কনের লাশ উদ্ধারের ঘটনায় বিক্ষোভ॥ অফিসগামী মানুষের চরম দূর্ভোগ

ব.ম শামীম: মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার শাঁখারী বাজার এলাকায় লিঙ্কন (১৮) নামের দর্জি শ্রমিকের গলাকাটা লাশ উদ্ধারের ঘটনায় বিক্ষোভ মিছিল করেছে এলাকাবাসী। বৃহস্পতিবার বৃহস্পতিবার সকাল ৯.৩০টায় মুন্সীগঞ্জের সিপাহীপাড়া এলাকা হতে মিছিল বের করা হলে টঙ্গীবাড়ী-মুন্সীগঞ্জ সড়কে তিব্র জানযট শুরু হয়। মিছিলকারীদের বাধার মুখে শত শত গাড়ি আটকে পরে।


এতে অফিসগামী লোকজনসহ হাজার হাজার যাত্রী বিপাকে পরে। এ সময় যাত্রীরা মিছিলকারীদের কাছে গাড়ি ছেড়ে দেওয়ার রাস্তা দিয়ে মিছিল করতে বললে মিছিলকারীরা গাড়ি চালক ও যাত্রীদের তেরে মারতে আসে। প্রায় আধঘন্টা পরে মিছিলটি মুন্সীগঞ্জের মানিকপুর এলাকায় পৌছাঁলে পুলিশ ব্যারিকেট দিয়ে মিছিলটি আটকে দেয়। পরে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়ে আসে।

উল্লেখ্য, গত ১৯শে জানুয়ারি রাত ১০টার পর লিংকন তার শাখারিবাজারস্থ ট্রেইলাসের দোকান থেকে নিখোঁজ হয়। এর পর বুধবার দুপুরে পার্শ্ববর্তী পুকুরে তার মরদেহ ভেসে উঠে।