সিপাহীপাড়া চৌরাস্তায় ট্রাফিক কনস্টেবল আহত, গ্রেপ্তার ৩

durgotonaমোজাম্মেল হোসেন সজল: মুন্সীগঞ্জে গাড়ির চালক ও ট্রাফিক পুলিশের সংঘর্ষে ট্রাফিক কনস্টেবল কামরুজ্জামান আহত হয়েছে। তাকে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ ৩ মাইক্রো চালককে আটক করেছে। সোমবার দুপুর সাড়ে ১২ টার দিকে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার ঢাকা-টঙ্গীবাড়ি-মুক্তারপুর সড়কের সিপাহীপাড়া চৌরাস্তায় এ ঘটনা ঘটে। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো-মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার নাহাপাড়া গ্রামের শাহজাহানের ছেলে রুহুল আমিন (৩৬), পশ্চিম কাজী কসবা গ্রামের নাসির শেখের ছেলে শরিফুল ইসলাম মুন্না (২৬) ও দক্ষিণ রামগোপালপুর গ্রামের আনোয়ার দেওয়ানের ছেলে আল-আমিন (৩০)। এ ঘটনায় ট্রাফিক কনস্টেবল আক্তারুজ্জামান বাদী হয়ে মুন্সীগঞ্জ সদর থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

জানা গেছে, গতকাল দুপুর ১২ টার দিকে সিপাহীপাড়া এলাকায় এক রিকশা টালকের সঙ্গে সিগনাল নিয়ে ট্রাফিক কনস্টেবল আক্তারুজ্জামানের সঙ্গে বচসা বাঁধে। এ ঘটনার রেশ ধরে মাইক্রো চালক রুহুল আমিনের কথাকাটাকাটি হয়।

ট্রাফিক কনস্টেবল আক্তারুজ্জামান জানান, রিকশা চালক ট্রাফিক আইন না মেনে রিকশা রাস্তার মধ্যে ফেলে রাখলে যানজট সৃস্টি হয়। এ সময় মাইক্রো চালক রিকশাওয়ালার পক্ষ নিয়ে সিপাহীপাড়া গাড়ির গ্যারেজে গিয়ে ১০-১৫ গাড়ির চালক নিয়ে এসে আমার উপর হামলা চালায়। পরে হাতিমারা ফাঁড়ির পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে ওই ৩ চালককে গ্রেপ্তার করে।#