মুন্সীগঞ্জে সাংবাদিকের ওপর হামলা

মাদকের বিক্রিতে শেল্টার দেওয়া ও সেবনের আড্ডাখানার বিরুদ্ধে সংবাদ প্রকাশ করায় ক্ষুব্ধ হয়ে আওয়ামী লীগ নেতা দেলোয়ার হোসেন ওরফে পিয়াজু দেলু বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম মুন্সীগঞ্জের ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট ও প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী দীপুর উপর হামলা চালিয়েছে।

শুক্রবার বিকেল সোয়া ৫টার দিকে শহরের প্রধান সড়কের বাজার সংলগ্ন শাজাহানের হোটেলের সামনে এ ঘটনা ঘটে। পরে মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী সাবিবর আহমেদ দীপু জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন।এ খবর পেয়ে মুন্সীগঞ্জে কর্মরত বিভিন্ন মিডিয়ার সাংবাদিকরা পুলিশকে অবহিত করলেও দেলোয়ার হোসেন ওরফে পিয়াজু দেলুকে আটক করেনি পুলিশ।

আহতবস্থায় কাজী দীপু জানান, শুক্রবার বিকেল ৫টার দিকে জগধাত্রীপাড়াস্থ শ্বশুরবাড়ি থেকে বের হয়ে প্রধান সড়কের শাজাহানের হোটেলের সামনে গেলে চিহ্নিত দেলোয়ার হোসেন ওরফে পিয়াজু প্রথমে হত্যা করা হবে বলে হুমকি দেয়।


এতে কাজী দীপু নিশ্চুপ থাকলেও পিয়াজু দেলু দ্বিতীয় দফা এগিয়ে গিয়ে তার বা চোখের নীচে আঘাত করে। এছাড়া শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করে। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে।

ঘটনার পরপরই বিষয়টি মুন্সীগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. হাবিবুর রহমানসহ সদর থানা পুলিশকে অবগত করা হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা রুজুর পক্রিয়া চলেছে।

সদর থানার সেকেন্ড অফিসার সুলতান জানান, পিয়াজু দেলুকে আটক করার চেষ্টা চলছে।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি মাদক বিক্রি ও সেবনে বাধাঁ দেওয়ায় পিয়াজু দেলুর নির্দেশে তার ছেলে ফয়সাল যুবলীগ নেতা গোলাম মাসুদ রানাকে ছুরিকাহত করে। এ মামলায় পিয়াজু দেলু গ্রেপ্তার ও জেলহাজতে খেটে জামিনে বের হয়ে মুন্সীগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী দীপু ও দৈনিক সমকাল পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি মামুনুর রশীদ খোকাকে মারধর করার হুমকি দিয়ে আসছিল। এরই অংশ হিসেবে গতকাল শুক্রবার বিকেল সোয়া ৫টার দিকে সাংবাদিক কাজীর দীপুর উপর হামলা চালায় দেলোয়ার হোসেন ওরফে পিয়াজু দেলু।

ঢাকা নিউজ এজেন্সি
===========

মুন্সীগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদকের ওপর সন্ত্রাসী হামলা

মাদক বিক্রিতে শেল্টার দেয়া ও সেবনের আড্ডাখানার বিরুদ্ধে সংবাদ প্রকাশ করায় ক্ষুব্ধ হয়ে প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী দীপুর উপর হামলা চালিয়েছে চিহ্নিত সন্ত্রাসী দেলোয়ার হোসেন ওরফে পিয়াজু দেলু।

শুক্রবার বিকেল সোয়া পাঁচটার দিকে শহরের প্রধান সড়কের বাজার সংলগ্ন শাজাহানের হোটেলের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

পরে মুন্সীগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী সাবিবর আহমেদ দীপু জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন।

এ খবর পেয়ে মুন্সীগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সভাপতি শহীদ-ই-হাসান তুহিন, সাবেক সভাপতি আরিফ-উল ইসলামসহ বিভিন্ন মিডিয়ার সাংবাদিক পুলিশকে জানায়। ঘটনার প্রায় দুই ঘণ্টা পার হলেও দেলোয়ার হোসেন ওরফে পিয়াজু দেলুকে আটক করা যায়নি।

কাজী দীপু জানান, শুক্রবার বিকেল পাঁচটার দিকে জগধাত্রীপাড়াস্থ শ্বশুরবাড়ি থেকে বের হয়ে প্রধান সড়কের শাজাহানের হোটেলের সামনে গেলে চিহ্নিত সন্ত্রাসী দেলোয়ার হোসেন ওরফে পিয়াজু তাকে হত্যা করা হবে বলে হুমকি দেয়।

এতে কাজী দীপু নিশ্চুপ থাকলেও পিয়াজু দেলু দ্বিতীয় দফা এগিয়ে তার বা চোখের নীচে আঘাত করে। এছাড়া শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করে। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে।

মুন্সীগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সভাপতি শহীদ-ই-হাসান তুহিন জানান, ঘটনার পরপরই বিষয়টি মুন্সীগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. হাবিবুর রহমানসহ সদর থানা পুলিশকে জানানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা রুজুর পক্রিয়া চলেছে।

সদর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) সুলতান জানান, পিয়াজু দেলুকে আটক করার চেষ্টা চলছে।

সম্প্রতি মাদক বিক্রি ও সেবনে বাধা দেয়ায় সন্ত্রাসী পিয়াজু দেলুর নির্দেশে তার ছেলে ফয়সাল যুবলীগ নেতা গোলাম মাসুদ রানাকে ছুরিকাহত করে। এ মামলায় পিয়াজু দেলু গ্রেফতার ও জেলহাজতে খেটে জামিনে বের হয়ে মুন্সীগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কাজী দীপু ও দৈনিক সমকাল পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি মামুনুর রশীদকে মারধোর করার হুমকি দিয়ে আসছিল।

এরই অংশ হিসেবে শুক্রবার বিকেল সোয়া পাঁচটার দিকে সাংবাদিক কাজীর দীপুর ওপর হামলা চালায় পিয়াজু দেলু।

নতুন বার্তা