শ্রীনগরে প্রেমে ব্যর্থ হয়ে শ্রেনীকক্ষে বসে বিষপানে মেধাবী ছাত্রের মৃত্যু!

আরিফ হোসেন: শ্রীনগরে প্রেমে ব্যর্থ হয়ে শ্রেনীকক্ষে বসে বিষপানে দশম শ্রেনীর এক মেধাবী ছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল এগারটার দিকে মেধাবী ছাত্র ওমর ফারুকের (১৫) লাশ উপজেলার সোন্দারদিয়া গ্রামে এসে পৌছলে সহপাঠি ও এলাকাবাসীর কান্নায় পরিবেশ ভাড়ি হয়ে উঠে।

এসময় এলাকাবাসী স্কুল কতৃপক্ষের গাফলতির অভিযোগ এনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। এলাকাবাসী জানায়, ছাতিয়ানতলী উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেনীর মেধাবী ছাত্র ওমর ফারুক গত বুধবার সকাল নয়টার দিকে বিদ্যালয়ে এসে এক ছাত্রীকে প্রেম নিবেদন করে। ঐ ছাত্রী ফারুকের প্রেম প্রত্যাখান করে। এতে দুপুর বারটার দিকে ফারুক শ্রেনীকক্ষে বসে বিষপান করে। সে গুরুতর অসুস্থ্য হয়ে পরলে তার সহপাঠিরা এগিয়ে আসে।

এসময় ফারুক তাদেরকে বিষপানের বিষয়টি জানায়। তার সহপাঠিরা তাকে ইছাপুরা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত ডাক্তার ফারুকের অবস্থা বেগতিক দেখে তাকে মিডফোর্ট হাসপাতালে রেফার্ড করেন। মিডফোর্ট হাসপাতালে সন্ধ্যায় ফারুকের মৃত্যু হয় । ফারুকের মৃত্যুর খবরে বৃহস্পতিবার স্কুল ক্যাম্পাসে ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে চরম উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। এসময় তার সহপাঠিরা অভিযোগ করেন স্কুল কতৃপক্ষ দ্রুত হাসপাতালে না নেওয়ায় ফারুকের মৃত্যু হয়েছে।


এব্যাপারে বিদ্যালয়ে পরিচালনা কমিটির সদস্য রফিকুল ইসলাম তারন বলেন, ফারুক বিষ খেয়েছে আমরা এখনো পর্যন্ত তা জানিনা। আর হাসপাতালে নেওয়া স্কুল কতৃপক্ষের দায়িত্ব নয়। অপরদিকে প্রধান শিক্ষক আবুল হাসান মোল্লা জানান আমরা বিষ খাওয়ার বিষয়টি জেনে হাসপাতালে পাঠিয়েছি। ফারুক সোন্দারদিয়া গ্রামের মজনু মিয়ার ছেলে। পাচঁ ভাইয়ের মধ্যে সে সবার ছোট। ফারুক ছাতিয়ানতলী উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেনীর বিজ্ঞান শাখার সেকেন্ড বয় ছিল।