কিশোরীর স্বপ্ন – রাহমান মনি

বাড়ীর পাশে সবুজ ঘাসে
খেলছে খেলা প্রজাপতি,
ইচ্ছে হলে উড়ে চলে
বুঝি না তার মতি গতি।

এই আছে তো এই বুঝি নাই
কোথায় তারে খুঁজে বেড়াই?
হঠাৎ যখন ফিরে আসে
ছুটে যে যাই তার খুব কাছে।

কাছে থেকে দেখবো বলে
অমনি সে যায় দূরে চলে,
জানি না কি ইচ্ছেটা তার
আটকায় তারে সাধ্য যে কার?


এই না দেখে কিশোরীর মন
উড়ে চলে সারাটা ক্ষণ,
মনের সুখে খুঁজে বেড়ায়
নাচে তাধিন তা ধিনধিন।

হরেক রকম রঙিন স্বপ্নে
জীবন সাজায় করে রঙিন,
মনে মনে স্বপ্ন বুনে
আশায় আশায় দিনটা গুনে।

রাজপুত্র তার আসলে তবে
দিনগুলো তার শেষ যে হবে,
পঙ্খিরাজের ঘোড়ায় চড়ে
রাজপুত্রের এক বাহু ধরে।

সাত সমুদ্র তের নদী
পারে হয়ে যায় নিরবধি,
তবেই পাবে রাজার দেশ
এভাবেই তার স্বপ্নের শেষ।

কিশোরীর মন স্বপ্ন ডাঙায়
বাস্তব এসে ঘুমটা ভাঙায়,
নিজে নিজেই চিম কাটে
বাস্তবে সে আছে খাটে।।

টোকিও
মার্চ, ২০১৩