রাঢীপাড়া গ্রামে প্রতিপক্ষের হামলায় নারীসহ আহত ১০

ক্রিকেট খেলা নিয়ে হাতাহাতির জের ধরে মুন্সীগঞ্জের আধারা ইউনিয়নের রাঢীপাড়া গ্রামে প্রতিপক্ষের হামলায় নারীসহ ১০ গ্রামবাসী আহত হয়েছে। মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের মধ্যে মোতালেব চৌধুরী (৪৫), ইমরান (২২), বেবি বেগম (৪২), লিটন খান (২৪), আক্তার খান (২৬), তোফাজ্জল খানকে (২৮) মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অপর আহতদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

আহতদের স্বজনরা বাংলানিউজকে জানায়, ক্রিকেট খেলা নিয়ে মঙ্গলবার বিকেলে আধারা ইউয়িনের রাঢীপাড়া গ্রামের মোতালেব চৌধুরী গংদের সঙ্গে বাংলাবাজার ইউনিয়নের শম্ভুপুরা গ্রামের মহিদুল পাইক গংদের হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।


এ ঘটনার জের ধরে রাত ৮টার দিকে মহিদুল পাইক গং রাঢীপাড়া গ্রামে অর্তকিতে হামলা চালিয়ে নারীসহ প্রায় ১০ গ্রামবাসীকে মারধরসহ রক্তাক্ত জখম করে।

সদর থানা উপপরিদর্শক (এসআই) সুলতানউদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে জানান, এ ঘটনায় এখনো কোনো অভিযোগ দাখিল করা হয়নি।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

=====================

রাঢ়ীপাড়ায় ক্রিকেট খেলা নিয়ে হামলা

মুন্সীগঞ্জের চরাঞ্চলের পূর্ব রাঢ়ীপাড়া গ্রামে ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে গ্রামবাসীদের মধ্যে সংঘর্ষে মহিলাসহ ১১ জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে মোতালেব চৌধুরী (৪৫), ইমরান (২২), বেবি বেগম (৪২), লিটন খান (২৪), আক্তার খান (২৬), তোফাজ্জল খানকে (২৮) মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় বুধবার মোতালেব চৌধুরীর সমর্থক সাহা আলী বাদী হয়ে মুন্সীগঞ্জ সদর থানায় ৮ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন।


পুলিশ জানায়, আধারা ইউনিয়নের পূর্ব রাঢ়ীপাড়া গ্রামের মাঠে মঙ্গলবার বিকেলে রাঢ়ীপাড়া ও বাংলাবাজার ইউনিয়নের শম্ভুপুরা গ্রামের দু’দলের মধ্যে ক্রিকেট খেলা অনুষ্ঠিত হয়। খেলার মাঠে দু’দলের খেলোয়াড়দের মধ্যে সংর্ঘষ বাঁধে। এ ঘটনায় পরে ক্রিকেট খেলা ভন্ডুল হয়ে যায়। খেলার মাঠের ঘটনার সূত্র ধরে রাতে বাংলাবাজার ইউনিয়নের শম্ভুপুরা গ্রামের মহিদুলের লোকজন আধারা ইউনিয়নের রাঢ়ীপাড়া গ্রামের মোতালেব চৌধুরীর বাড়ি-ঘরে হামলা চালায়।

মুন্সীগঞ্জ নিউজ