শীতলক্ষা নদী থেকে যুবকের লাশ উদ্ধার

deadbody17রাজীব হোসেন বাবু: মুন্সীগঞ্জের শীতলক্ষ্যা নদীতে আবারও অজ্ঞাতনামা এক যুবকের (৩০) লাশ পাওয়া গেছে। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মুন্সীগঞ্জ সীমান্তের শীতলক্ষ্যা নদী থেকে লাশটি মুক্তারপুর নৌ-ফাঁড়ির পুলিশ উদ্ধার করে। নিহতের মাথায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। মুক্তারপুর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই মোশারফ হোসেন জানান, মুন্সীগঞ্জ-নারায়ণগঞ্জ সীমানায় শাহ ও মেট্রো সিমেন্ট ফ্যাক্টরীর মাঝামাঝি এলাকার শীতলক্ষ্যা নদীতে একটি লাশ ভেসে উঠে। পরে তা উদ্ধার করা হয়। তার ধারণা, গত ৩দিন আগে যুবককে হত্যা করে লাশটি শীতলক্ষ্যা নদীতে ফেলে রেখে যায় দুবৃর্ত্তরা। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হযেছে।
deadbody17
ইউএনএসবিডিডট

==================

শীতলক্ষা নদী থেকে যুবকের লাশ উদ্ধার

মুন্সীগঞ্জের পশ্চিম মুক্তারপুর শাহ সিমেন্ট ফ্যাক্টরি সংলগ্ন শীতল্যক্ষা নদী থেকে অজ্ঞাতপরিচয় এক যুবকের (৩২) লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রোববার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মুক্তারপুর নৌ ফাঁড়ির পুলিশ ভাসমান অবস্থায় নদী থেকে ওই লাশ উদ্ধার করে। মুক্তারপুর নৌ ফাঁড়ির উপ পরিদর্শক (এসআই) মোশারফ হোসেন বাংলানিউজকে জানান, স্থানীয়রা শীতলক্ষা নদীতে একটি ভাসমান লাশ দেখে পুলিশকে খবর দেয়। পরে খবর পেয়ে পুলিশ পশ্চিম মুক্তারপুর শাহ সিমেন্ট ফ্যাক্টরি সংলগ্ন শীতল্যক্ষা নদী থেকে ভাসমান অবস্থায় অজ্ঞাত ওই যুবকের লাশ উদ্ধার করে।


তিনি আরও জানান, অজ্ঞাত ওই যুবকের নামপরিচয় সনাক্ত করার চেষ্টা চলছে। তাকে অন্য কোথাও হত্যার পর লাশ নদীতে ফেলে দিলে তা ভাসতে ভাসতে মুন্সীগঞ্জ অংশে চলে এসেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম