লৌহজংয়ে ভাতিজার ছুরিকাঘাতে আহত চাচার মৃত্যু

মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার বাসুদিয়া গ্রামে ভাতিজার ছুরিকাঘাতে আহত চাচা বাদশা পাঠান (৪৫) মারা গেছেন।এ ঘটনায় পুলিশ দুইজনকে গ্রেফতার করেছে। তিনি বুধবার দিবাগত মধ্যরাতে ঢাকার একটি প্রাইভেট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। নিহত বাদশা বসুদিয়া গ্রামের মৃত খলিল পাঠানের ছেলে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে নিহতের লাশ গ্রামের বাড়িতে নেওয়া হয়েছে।


জানা গেছে, গত ২৫ ফেব্রুয়ারি সকালে জেলার লৌহজং উপজেলার বসুদিয়া গ্রামে বাদশা মিয়ার সঙ্গে তার ছোট ভাই মতিন পাঠানের ছেলে ভাতিজা শরীফ পাঠানের মধ্যে ঝগড়া হয়।

এ সময় শরীফ তার হাতে থাকা ছোরা দিয়ে বাদশাকে ছুরিকাঘাত করে। এতে তিনি গুরুতর আহত হন। পরে তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকার একটি প্রাইভেট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

লৌহজং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. জাকিউর রহমান বাংলানিউজকে জানান, এ ঘটনায় থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। পরে মতিনসহ ২ আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম