পটরেখা’র যাত্রা শুরু

pathrekhaরাহমান মনি
সংগঠনপ্রিয় প্রবাসীদের আরও একটি নতুন সংগঠনের আত্মপ্রকাশ ঘটেছে জাপানে। এক ঝাঁক তরুণ উদ্যমী জাপান প্রবাসী ‘পটরেখা’ নামে সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনটির আত্মপ্রকাশ ঘটায়। পটরেখার মূল সেøাগান হচ্ছে ‘পজিটিভ বাংলাদেশ, আমার দেশ আমার অহঙ্কার এবং পটরেখা নতুন প্রজন্মের কথা বলে।’ আত্মপ্রকাশ করে পটরেখা জানান দেয়, তার টিকে থাকার শক্ত অবস্থানের কথা। আত্মপ্রকাশের অভিষেক উপলক্ষে টোকিওর প্রাণকেন্দ্র ইকেবুকুরো অরেঞ্জ প্যানারিতে দুইদিনব্যাপী এক বাংলাদেশি সাংস্কৃতিক প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়। ১১ সদস্যবিশিষ্ট কমিটির পরিচিতি করানো হয় আয়োজনে।


১৯ এবং ২০ জানুয়ারি ২০১৩ আয়োজিত সাংস্কৃতিক প্রদর্শনী আয়োজনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টোকিওস্থ বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন। দূতাবাসের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ, জাপান-বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক অঙ্গনের বিভিন্ন কর্মকর্তাবৃন্দ, প্রবাসী সামাজিক সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক, প্রবাসী মিডিয়া, জাপানের জাতীয় মিডিয়া এন এইচ কে এবং সংস্কৃতিপ্রেমীরা উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। উদ্বোধনী প্রাক এক অনাড়ম্বর আয়োজনে বক্তব্য রাখেন মুন্সী কে আজাদ, ড. শেখ আলীমুজ্জামান, আব্দুল ওয়াদুদ, বেবী রানী কর্মকার, মাসুদুর রহমান খন্দকার আসলাম হিরা, সলিমুল্লা কাজল, সোমেয়া মিনোরু, রাশেদুল ইসলাম, হুমায়ুন কবির, কিমোতো য়ুইচিরো, রাষ্ট্রদূত মাসুদ-বিন মোমেন, কামরুল হাসান নিপু প্রমুখ। রাষ্ট্রদূত তার বক্তব্যে প্রবাসীদের শুভেচ্ছা দূত উল্লেখ করে বলেন, আপনারা বাংলাদেশকে জাপানে যেভাবে পরিচিতি করছেন তাতে একজন রাষ্ট্রদূত হিসেবে, একজন বাংলাদেশি হিসেবে আমি গর্বিত, বাংলাদেশ সরকার, দূতাবাস এবং ব্যক্তিগতভাবে আমি আপনাদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি। এরপর রাষ্ট্রদূত ২০১৩ সালে জাপান-বাংলাদেশ যৌথ আয়োজনের বিভিন্ন ফিরিস্তি দিয়ে বলেন, আমি আজ এখানে এসে দেখছি পুরো বছরের আয়োজন ছোট পরিসরে এক জায়গাতে হয়ে যাচ্ছে। পটরেখায় এমন আয়োজনে আমি অভিভূত। তিনি বলেন, আমাদের সাংস্কৃতিক পরিধি খুবই প্রাচীন এবং সমৃদ্ধশালী, জাপানি সমাজে তা ভালোভাবে উপস্থাপন করতে হবে। দূতাবাস সবসময় আপনাদের সহযোগিতা দিয়ে যাবে।


পটরেখা প্রতিষ্ঠাতা কামরুল হাসান নিপু বলেন, পটরেখা জাপানে বাংলাদেশীয় সংস্কৃতি, শিল্প, সাহিত্য, চিত্রকলা এবং মিডিয়া হিসেবে কাজ করবে। বিশেষ করে বাংলাদেশের চিত্র শিল্পকে জাপানে প্রতিষ্ঠায় নিরলস কাজ করে যাবে। নিপু আরও বলেন, পটরেখা একটি ওয়েব পোর্টাল (িি.িঢ়ড়ঃড়ৎমশযধ.পড়স) ভাষার মাস ফেব্রুয়ারি মাস থেকে শুরু হবে। যার মূল স্লোগান হচ্ছে পজিটিভ বাংলাদেশ। এখানে বাংলাদেশকে সম্পূর্ণ নতুনভাবে উপস্থাপন করা হবে। নতুন প্রজন্মের কথা থাকবে। থাকবে সম্ভাবনার কথা। বাংলাদেশে শিল্প (খাদ্য, হস্ত, বুটিক, কুটির, চামড়া, পাটজাত, তৈরি পোশাক, মৃৎ, মৎস্য, কৃষি) পণ্য জাপানে পরিচিতির পাশাপাশি পর্যটন এবং বাংলাদেশে বিনিয়োগে আকৃষ্ট করার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ থাকবে পোর্টালে। সব ধরনের নিউজ, লিংক এবং বিনোদনের ব্যবস্থা তো থাকবেই। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন জুয়েল আহসান কামরুল।

সংস্কৃতি প্রদর্শনীতে বাংলাদেশের শিল্পজাত দ্রব্য (তৈরি পোশাক, চামড়ার বিভিন্ন পণ্য, খাদ্য শিল্প ঐতিহ্যবাহী বিভিন্ন পিঠা, পাট দিয়ে তৈরি বিভিন্ন পণ্য, মৃৎ শিল্প, যন্ত্রশিল্প, নকশী কাঁথা স্থান পায়। এছাড়াও চিত্রকলা প্রদর্শনীতে কামরুল হাসান নিপু, এমডি কে পারভেজ হাসান, তমা জাবিন, দেবশ্রী পাল, নগরবাসী, আলাউদ্দিন আহমেদ, পিটার কে এম আমানতের চিত্র স্থান পায়। দু’দিনব্যাপী এই প্রদর্শনীতে জাপান-বাংলাদেশ ছাড়াও অন্য দেশের বিপুলসংখ্যক দর্শনার্থীর পদচারণা ঘটে।

rahmanmoni@gmail.com

সাপ্তাহিক