মুন্সীগঞ্জে ২ শিশু অপহরণকারী গ্রেফতার

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান ও টঙ্গীবাড়ী থানা পুলিশ পৃথক শিশু অপহরণের ঘটনায় ২ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে। সিরাজদিখান থানা পুলিশ বৃহস্পতিবার হৃদয় (১৬) নামে এক শিশু অপহরণকারীকে গ্রেফতার করে। আশরাফুল (১৬) নামের অপর শিশু অপহরণকারীকে গ্রেফতার করেছে টঙ্গীবাড়ী থানা পুলিশ। একটি অপহরণ মামলায় বুধবার রাতে ঢাকার আশুলিয়া থানার বাদারিয়া এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে টঙ্গীবাড়ী থানা পুলিশ।


টঙ্গীবাড়ী থানার ওসি আব্দুল খালেক জানান, গত ৮ জানুয়ারী সন্ধ্যায় মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী থানার বালিগাঁও গ্রাম হতে ইমরান হাওরাদার(১৪) নামে এক স্কুল ছাত্র নিখোঁজ হয়। পর দিন ৫০ লাখ টাকা মুক্তিপন দাবি করে পরিবারের সদস্যদের নিকট ফোন করলে ইমরান অপহরন হয়েছে বলে বুঝতে পারে পরিবারের সদস্যরা। এ ব্যাপরে বালিগাঁও ইউপি ৭ নং ওয়ার্ড মেম্বার ও ইমরানের পিতা সংশ্লিস্ট থানায় অভিযোগ করলে পুলিশ গত ১২ জানুয়ারী ঢাকার আশুলিয়া থেকে বেলাল নামের একজনকে আটক করে। পরে বেলালের দেয়া তথ্যমতে ১৩ জানুয়ারী নারায়নগঞ্জের কাচপুর ব্রীজের নিকট থেকে অপহৃত বালিগাঁও উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেনীর স্কুল ছাত্র ইমরানকে উদ্ধার করা হয়। এরই ধারাবাহিকতায় বুধবার অপহরণ দলের আরেক সদস্য আশরাফুরকে গ্রেফতার করে টঙ্গীবাড়ী থানা পুলিশ।

সিরাজদিখান থানার ওসি শেখ মাহাবুবুর রহমান জানান, গত ২৯ জানুয়ারী সিরাজদিখান উপজেলার বয়রাগাদি গ্রামের সিপন বেপারীর ক্লাস ওয়ানে পড়–য়া ছেলে সাজ্জাত (৬) নিখোঁন হয়। এ ব্যাপরে সিপন বেপারী সিরাজদিখান থানায় একটি জিডি করলে পুলিশি তৎপরতায় অপহরণকারীরা পরের দিন তাকে ছেড়ে দেয়। পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার করে তার পিতা-মাতার কাছে পৌছে দেয়। অপহৃত সাজ্জাতের দেখিয়ে দেওয়ার ভিত্তিতে গতকাল হৃদয়কে সাজ্জাত অপহরণের দায়ে গ্রেফতার করা হয়।

মুন্সীগঞ্জ নিউজ