মুন্সীগঞ্জ পৌরসভার নির্বাচনে মেয়র পদে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই

এমপিসহ আ’লীগ বিএনপি শীর্ষ নেতারা মাঠে
কাজী দীপু, মুন্সীগঞ্জ থেকে: শেষ মুহূর্তের প্রচারে মুন্সীগঞ্জ পৌরসভার নির্বাচনে মেয়র পদে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হবে বলে মনে করছে স্থানীয় রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকমহল। তবে এই লড়াই দ্বিমুখী না ত্রিমুখি হবে তা নিয়ে ভোটারদের মধ্যে কৌতূহলের শেষ নেই। বিভিন্ন পাড়া মহল্লায়, অফিস আদালতে ও চায়ের স্টলগুলোতে এখন এই হিসাব মিলাতে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন ভোটাররা।

তারা বলছে, মুন্সীগঞ্জ পৌরসভায় ৬ জন মেয়র প্রার্থী হলেও এখানে মূলত বিপ্লব-মজিবর-মানু এই তিন প্রার্থীর মধ্যে ভোটযুদ্ধ হবে। আবার অনেকে বলছেন, মহাজোটের সমর্থন নিয়ে অ্যাড. মজিবুর রহমান নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী হলেও মূলত জেলা আ’লীগের সভাপতি মোহাম্মদ মহিউদ্দিনের ছেলে ফয়সাল বিপ্লবের সঙ্গে জেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল হাই সমর্থিত ইবাদত হোসেন মানুর হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হবে। এক্ষেত্রে মহাজোট প্রার্থী তৃতীয় অবস্থানে থাকবে বলে মনে করা হচ্ছে। অপরদিকে কারো কারো মতে, ভোটযুদ্ধে মেয়র প্রার্থী ফয়সাল বিপ্লব এগিয়ে রয়েছেন।

আবার অনেক ভোটররা বলছেন, মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচনে বিপ্লব-মজিবুর-মানু মেয়র প্রার্থী হলেও নেপথ্যে নিজের জনপ্রিয়তা ও অস্তিত্ব বজায় রাখতে জয়ের জন্য যুদ্ধে নেমেছেন জেলা আ’লীগের সভাপতি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন, জেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল হাই এবং সরকার দলীয় স্থানীয় এমপি এম ইদ্রিস আলী ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আনিছুজ্জামান আনিছ। সেইসঙ্গে সাবেক সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হোসেন বাবুলও নির্বাচনি যুদ্ধে মাঠে নেমেছেন। তারা সকলেই নিজ পছন্দের প্রার্থীকে জয়ী করতে সরাসরি নির্বাচনি প্রচারে প্রকাশ্যে নেমে পড়ায় সরগরম হয়ে উঠেছে নির্বাচনি এলাকা।

বিগত পৌর নির্বাচনগুলোতে আ’লীগ ও বিএনপির জেলার শীর্ষ নেতারা কখনো প্রকাশ্যে নির্বাচনে না নামলেও এবারের নির্বাচনে জেলার রাজনীতির নিয়ন্ত্রক আওয়ামী লীগ ও বিএনপির ওই শীর্ষ নেতারা তাদের নিজ পছন্দের প্রার্থীকে জয়ী করতে মাঠে নেমে পড়ায় নির্বাচনের আমেজ অনেকটা বাড়িয়ে তুলেছে। অপরদিকে এ বিষয়টিকে জেলা প্রশাসন, পুলিশ, গোয়েন্দা সংস্থাসহ সরকারি বিভিন্ন দফতর গভীরভাবে পর্যবেক্ষণে রেখে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি যাতে অবনতি না হয় সে লক্ষে তারা সর্তকতার মাধ্যমে প্রস্তুুত রয়েছে। জেলা নির্বাচন অফিস সূত্র জানায়, মুন্সীগঞ্জ পৌরসভায় ৪১ হাজার ১৪০ জন ভোটার রয়েছে।

[ad#bottom]

One Response

Write a Comment»
  1. Kazi Dipu ghuriye firiye Sontrasi Biplober pokkhe likheche / Mohiuddin er chele Biplob ekjon sontrasi chara ar kono porichoy nei /Ze naki nijer chachato bhaier khuner nepotthe kaj koreche/ pass korar prosnoi uthena /3rd hote pare/ Mane ekjon shikkhito ,ruchishil & marzito vodrolok / Tar paribarik background o valo / Muzibur er sathe lorai hole o Manu e Meyor hobe bole amar Bisswas