মুন্সিগঞ্জে স্মরণকালের সবচেয়ে জাঁকজমকপূর্ণভাবে বিজয় দিবস পালিত

মুন্সিগঞ্জে স্মরণকালের সবচেয়ে জাঁকজমকপূর্ণভাবে বিজয় দিবস পালিত হয়েছে। ভোরে শহরের শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের নাম খচিত স্মৃতিস্তম্ভে পুস্পস্তবক অর্পন করে সর্বস্তরের মানুষ। সকালে মুন্সিগঞ্জ স্টেডিয়ামে প্যারেড পরিদর্শন ও মনোঞ্জ কুচকাওয়াজ এবং সরকারী হরগঙ্গা কলেজ পুকুরে হংস ধৃতকরণ প্রতিযোগিতা ও উন্মুক্ত সাঁতার প্রতিযোগিতায় মাতিয়ে তুলে দর্শকদের। বিকালে স্টেডিয়ামে বিজয় দিবস টুয়েন্টি টুয়েন্টি ক্রিকেট ফাইনাল এবং দু’ পৌরসভার মধ্যে কাবাডি এবং প্রীতি ফুটবল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়া মেয়েদের হ্যান্ডবল, কাবাডি এবং মহিলাদের রশি টানাটানি হয় এভিজেএম উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ে।

দুপুরে জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা, মুক্তিযোদ্ধা এবং শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা এবং সন্ধ্যায় সুখী সমৃদ্ধ, ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত বাংলাদেশ গঠনের লক্ষ্যে ডিজিটাল প্রযুক্তির সার্বজনীন ব্যবহার শীর্ষক আলোচনা এবং মনোঞ্জ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এছাড়া সন্ধ্যায় জেলা শহর থেকে রোড শো নিয়ে মুক্তারপুর সেতু যায় বর্ণাঢ্য একটি দল। মুক্তারপুর সেতু সাজানো হয় ভিন্ন সাঁজে। জাতীয় সংসদের হুইপ সাগুফতা ইয়াসমিন এমিলি এমপি টঙ্গীবাড়ি ও লৌহজংসহ জেলার বিজয় দিবসের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থি ছিলেন। শ্রীনগর ও সিরাজদিখানে সুকুমার রঞ্জন ঘোষ এবং সদরে আলহাজ মমতাজ বেগম এমপি অংশ নেন। মুন্সিগঞ্জ স্টেডিয়ামে কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠান সালাম গ্রহন করেন জেলা প্রশাসক মো.আজিজুল আলম ও পুলিশ সুপার মো. শফিকুল ইসলাম।

[ad#bottom]