লৌহজংয়ে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন!

শনিবার লৌহজংয়ে উত্তর কুমারভোগ মধ্যযুগীয় বর্বর কায়দায় যুবককে বাড়ীর আম গাছের সাথে বেধে রেখে নির্যাতিত করা হয়েছে। অভিযোগে জানা যায়, এই বর্বরোচিত নির্যাতনের শিকার হয়েছে লৌহজং উপজেলার উত্তর কুমারভোগ গ্রামের শামীম(৩০)। প্রত্যক্ষদর্শী এলাকাবাসীরা জানান, একই গ্রামের এমদাদ হোসেন আলীর বাড়ীতে ধরে এনে আম গাছের সাথে বেঁধে এমদাদ, শাওন, মিন্টু, সাইফুল, বাধন, স্বপন, সবুজ, লাল্টুসহ ১০/১২জন শামীমকে বেদরক ভাবে পিটায় ও নির্যাতন চালায়। খবর পেয়ে শামীমের মা সাজেদা, ভাই ছালাম ও শাহীন তাকে উদ্ধার করতে ছুটে আসে। নির্যাতরকারী সন্ত্রাসীরা তাদের উপরও দেশীয় অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে ঝাপিয়ে পড়ে। এতে গুরুতর আহত ছালাম ঢালী (৪২), শাহানাজ বেগম সাজেদা (৬৫) ও শাহীনকে রাতে লৌহজং সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এই এব্যাপারে লৌহজং থানায় লিখিত অভিযোগ দাখিল করা হয়েছে। লৌহজং থানার ওসি হেলাল উদ্দিন জানান, জমি ও বাড়ী সংক্রান্ত পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এই ঘটনা ঘটে থাকতে পারে।

[ad#bottom]