পরিবহন ধর্মঘট ৪ ঘণ্টা পর প্রত্যাহার

ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ-মুন্সিগঞ্জ সড়ক সংস্কারের দাবিতে ২৫টি পরিবহন মালিক সংগঠনের ডাকা ধর্মঘট ৪ ঘণ্টা পর প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে। ভাঙ্গা রাস্তা মেরামত ও আগামী দুই মাসের মধ্যে রাস্তার সংস্কার কাজ সমাপ্ত করার ব্যাপারে ঢাকা সড়ক ও জনপথ বিভাগের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে রোববার ১০ টার দিকে এ ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়। এদিকে পূর্বনির্ধারিত এই ধর্মঘট চলাকালে সকাল ৬ টা থেকে ১০ টা পর্যন্ত ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ-মুন্সিগঞ্জ রুটে সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ ছিল। ফলে হাজার হাজার মানুষ চরম দুর্ভোগে পড়ে। বিশেষ করে অফিসগামী লোকজন, শিক্ষার্থী ও অসুস্থদের বিড়ম্বনার মধ্যে পড়তে হয়।

ধর্মঘটের সমর্থনে পরিবহন শ্রমিকরা নারায়ণগঞ্জ ও মুন্সিগঞ্জের বিভিন্ন জায়গায় বিক্ষোভ প্রদর্শন করে।

ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ-মুন্সিগঞ্জ সড়ক সংস্কারের দাবিতে নারায়ণগঞ্জ ও মুন্সিগঞ্জের ২৫টি পরিবহনের মালিক সংগঠনের সমন্বয়ে গঠিত নারায়ণগঞ্জ-মুন্সিগঞ্জ বাস, মিনিবাস, ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান মালিক ঐক্যজোট সকাল-সন্ধ্যা ধর্মঘট আহবান করে। তাদের সঙ্গে অন্যান্য পরিবহন সংগঠনও একাত্মতা ঘোষণা করে। ফলে ঢাকার সঙ্গে নারায়ণগঞ্জ ও মুন্সিগঞ্জ জেলার যোগাযোগ কার্যত অচল হয়ে পড়ে।

নারায়ণগঞ্জ-মুন্সিগঞ্জ জেলা বাস-মিনিবাস (কোম্পানী)-ট্রাক-কাভার্ড ভ্যান মালিক শ্রমিক ঐক্য জোটের আহবায়ক মোক্তার হোসেন জানান, সকাল সাড়ে ১০টার দিকে নারায়ণগঞ্জ-৫ (শহর-বন্দর) আসনের সাংসদ এ কে এম নাসিম ওসমান, ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক আমিনূল্লা নূরী ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক মফিজুল ইসলাম ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেওয়ার অনুরোধ জানান।

নারায়ণগঞ্জ সড়ক ও জনপথ ঢাকা বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মনির হোসেন পাঠান রোববার থেকে রাস্তা মেরামত এবং আগামী দুই মাসের মধ্যে রাস্তার কাজ সম্পূর্ণ শেষ করার আশ্বাস দেন। ফলে সকাল ১০ টায় ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়।

বিডি নিউজ 24
—————————————————-
ঢাকা-মুন্সীগঞ্জ সড়কে পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার

ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ-মুন্সীগঞ্জ সড়কে সকাল-সন্ধ্যা পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার করা হয়েছে। সড়ক সংস্কার না করার প্রতিবাদে ২৫টি পরিবহন মালিক সংগঠন রোববার এই সড়ক ধর্মঘট আহবান করে। সকালে নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য নাসিম ওসমান, জেলার ভারপ্রাপ্ত ডিসি আমিনুল্লাহ নুরী এবং সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহি প্রকৌশলী মনিরুল ইসলাম পাঠান পরিবহন মালিক সমিতির নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করে সড়ক মেরামতের আশ্বাস দেন। পরিবহন মালিকরা কর্তৃপক্ষের আশ্বাসে বেলা ১১টার দিকে ধর্মঘট প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত এ রুটে যানচলাচল শুরু হয়েছে। জানা গেছে, আগামী তিনদিনের মধ্যে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ-মুন্সীগঞ্জ সড়কের ক্ষতিগ্রস্ত এলাকার কাজ শুরু করবে সড়ক ও জনপথ বিভাগ। এ কাজ আগামী তিন মাসের মধ্যে সম্পন্ন হবে বলেও পরিবহন মালিকদের আশ্বস্ত করেছেন সড়ক ও জনপথ বিভাগ।
শীর্ষ নিউজ
—————————————————————-

ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ-মুন্সিগঞ্জ রুটে পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার

রাস্তা সংস্কারের দাবীতে অনির্দিষ্ট কালের জন্য মুন্সিগঞ্জ-নারায়ণগঞ্জ-ঢাকা সড়কে পরিবহন ধর্মঘটের প্রথম দিন রবিবার সকালেই প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে। তাই সকাল সাড়ে ১০টা থেকে যান চলাচল শুরু হয়েছে। এর আগে নারায়ণগঞ্জ ও মুন্সিগঞ্জসহ ২৫টি রুটের পরিবহন বন্ধ থাকায় হাজার হাজার মানুষ দুর্ভোগে পড়ে।

পঞ্চবটি থেকে জুরাইন পর্যন্ত ৮কিলোমিটার গুরুত্বপূর্ণ সড়ক এখন চলাচলের অযোগ্য প্রায়। এতে যানবাহন ক্ষতিগ্রস্ত ছাড়াও এই রুটের যাত্রীরা দীর্ঘদিন ধরে নানা দুভোর্গ পোহাচ্ছেন। কিন্তু এই সড়কটির কর্তৃপক্ষ সড়ক ও জনপথ বিভাগ নিরব দর্শকের ভূমিকায় ছিল।

সড়কটির সংশ্লিষ্ট পরিবহনের মালিক ও শ্রমিকদের ডাকা অনির্দিষ্টকালের এই ধর্মঘটের পর টনক নড়ে।

“রবিবার থেকে এই সড়কের সংস্কার কাজ শুরু হবে” এই আশ্বাসের প্রেক্ষিতে রবিবার সকাল ১০টা থেকে পরিবহন নেতারা ধর্মঘট প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন। নাযরণগঞ্জের সংসদ সদস্য, জেলা প্রশাসক এবং সড়ক ও জনপথের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের এই দিয়েছেন বলে পরিবহন নেতার জানিছেন। মুন্সিগঞ্জ সদর থানার ওসি মো.শহিদুল ইসলাম এই তথ্য জানিয়ে বলেন, সকাল সাড়ে ১০টায় ঢাকার গুলিস্থান থেকে মুন্সিগঞ্জের উদ্দেশ্যে বাস ছেড়েছে। মুন্সিগঞ্জ থেকেও ঢাকার উদ্দেশ্যে পৌনে ১২টা থেকে বাস চলাচল শুরু হয়েছে। অনুরূপভাবে নারায়ণগঞ্জসহ অন্যান্য ২৫টি রুটেই যান চলাচল শরু হয়েছে।

বিক্রমপুর সংবাদ
—————————————————————————-

[ad#co-1]