বন্ধনে বাঁধন

বাঁধনের বাড়ি বিক্রমপুরে। ঈদে মাঝে মধ্যে গ্রামের বাড়ি যেতেন তিনি। কিন্তু এবারের রোজার ঈদটা তার কেটেছে টাঙ্গাইলে। সেখানেই যে তার শ্বশুরবাড়ি! গত ৮ সেপ্টেম্বর ঢাকায় অনেকটা চুপিসারে ব্যবসায়ী সনেটের সঙ্গে তার বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়। তার বিয়ের পরপরই ছিল রোজার ঈদ। এর তিন দিন পর স্বামীর সঙ্গে মধুচন্দ্রিমায় নেপালে যান এই লাক্স তারকা। এক সপ্তাহ ভ্রমণের পর দেশে ফিরেছেন ২০ সেপ্টেম্বর। বাঁধন জানান, ‘আমাদের বিয়ের সময়সূচি হুট করেই চূড়ান্ত হয়ে যায়। ঈদের ঠিক আগে বিয়ে হওয়ায় ঘটা করে কাউকে জানানোর সুযোগ পাইনি।’

বাঁধনের এই নতুন বন্ধনে জড়ানোর খবর পেয়ে সহকর্মীরা অনেকেই তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। তবে তার বিয়ে হঠাৎই হয়ে গেছে। প্রায় এক বছর ধরে পরিবার থেকে পাত্র দেখা চলছিল। বাঁধনও বিয়ের বিষয়ে নিজের সম্মতি জানিয়ে রেখেছিলেন। সনেট তার কাজিনের পরিচিত একজন। পারিবারিকভাবেই তাদের বিয়ের কথাবার্তা হয়েছে। বিয়ের আগে প্রায় তিন মাস সনেটের সঙ্গে বাঁধনের নিয়মিত যোগাযোগ হয়েছে, মাঝে মধ্যে দেখাও করেছেন দু’জনে। বাঁধন কথা দিয়েছেন, এক-দেড় মাসের মধ্যেই বড়সড় একটি বিবাহোত্তর অনুষ্ঠানে সবাইকে আমন্ত্রণ জানাবেন। স্বামীর সঙ্গে সহকর্মীদের পরিচয় করিয়ে দেবেন। নতুন জীবনে কোনো পরিবর্তন ধরা পড়ছে? বাঁধনের ভাষ্য, ‘বিয়ের আগে একা ছিলাম। এখন দোকলা। তবে আমি যেমন ছিলাম তেমন থাকতে চাই। সংসারের পাশাপাশি অভিনয় ও চিকিৎসা পেশায় কাজ করার বিষয়ে শ্বশুরবাড়ি থেকে কোনো আপত্তি নেই।’

[ad#co-1]