খুনী রবিউলের ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তি

মুন্সিগঞ্জে শিশু তৌকির হত্যাকান্ড
সদর উপজেলার চরাঞ্চলের ফুলতলার নিস্পাপ শিশু তৌকির(১০) হত্যার ঘাতক রবিউল হোসেন (২২) শনিবার বিকেলে আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি প্রদান করেছে। সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে প্রায় ২ ঘন্টা ধরে সে স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দি প্রদান করে। সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট রবিউল আলম বিকেল ৩ টা থেকে ৫ টা পর্যন্ত ২ ঘন্টা নিস্পাপ শিশুর ঘাতকের জবানবন্দি রেকর্ড করেন।

২ দিনের রিমান্ড শেষে শনিবার গ্রেফতারকৃত ৫ ঘাতককে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। বেলা ১২ টার দিকে, ফের ৫ দিনের রিমান্ড আবেদন করে পুলিশ গ্রেফতারকৃত রবিউল হোসেন (২২), হান্নান (২১), আবুল (২৬), আনোয়ার (২৪) ও ময়নালকে (২৬) মুন্সীগঞ্জের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে পাঠায়। এতে আদালত শনিবার রিমান্ড শুনানী না করে তাদের জেল হাজতে প্রেরন করে। আজ রবিবার আদালতে ফের রিমান্ডের শুনানী হবে।

মুন্সিগঞ্জের চরাঞ্চলের ফুলতলা গ্রামে সোমবার ৫ দুর্বৃত্ত নির্মমভাবে হত্যা করে স্কুল ছাত্র তৌকির আহমেদকে (১০)। বৃহস্পতিবার ভোরে নিজ বাড়ির ২০ হাত কাছের গোবরের স্তুপের ভেতর গুম করা তৌকিরের গলিত লাশ উদ্ধার ও ৫ ঘাতককে গ্রেফতার করে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতদের বৃহস্পতিবার জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ২ দিনের রিমান্ডে আনা হয়েছিল।

মোহাম্মদ সেলিম, মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধি। ০১৯১১১৪২৬৭০
০৪.০৯.১০

[ad#co-1]