রফিকুল, মোয়াজ্জেমের আগাম জামিন

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার হুমকি দেওয়ার অভিযোগে নয়টি মামলায় বিএনপি’র স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া ও ভাইস চেয়ারম্যান শাহ মোয়াজ্জেম হোসেনকে আগাম অন্তর্বর্তীকালীন জামিন দিয়েছে হাইকোর্ট। আটটি মামলায় অভিযোগ গঠন না করা পর্যন্ত এবং অপর মামলায় পুলিশি প্রতিবেদন জমা না দেওয়া পর্যন্ত তাদের আগাম জামিন দেওয়া হয়।

পাশাপাশি তাদের কেন স্থায়ী আগাম জামিন দেওয়া হবে না সরকারের কাছে তার কারণ জানতে চেয়েছে হাইকোর্ট।

তাদের পক্ষে শুনানি করেন জ্যেষ্ঠ অ্যাডভোকেট খন্দকার মাহবুব হোসেন।

সরকার পক্ষে আইনজীবী হিসাবে ছিলেন অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মমতাজউদ্দিন ফকির।

গত ২৫ জুলাই জুলাই মুক্তাঙ্গনে বিএনপি’র সমাবেশে প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার হুমকি দেওয়ার অভিযোগে এই দুজনের বিরুদ্ধে বগুড়া, ভোলা, পঞ্চগড়, ঢাকা, মুন্সীগঞ্জ, নড়াইল, কুষ্টিয়া, চট্টগ্রাম ও সিরাজগঞ্জে বিভিন্ন তারিখে মামলা দায়ের হয়।

এসব মামলায় অভিযোগ করা হয়, ওই সমাবেশে শাহ মোয়াজ্জেম হোসেন প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে বলেছেন, “আপনার বাবার যে পরিণতি হয়েছে আপনারও তাই হবে”।

রফিকুল ইসলাম মিয়া বলেছেন, “আপনার বাবা একদলীয় শাসনব্যবস্থা কায়েম করায় আল্লাহর নির্দেশে উপরে চলে গেছেন। আপনিও আপনার বাবার পরিণতির কথা চিন্তা করেন।”

ওই সমাবেশে খোন্দকার দেলোয়ার হোসেন ও মওদুদ আহমদ উপস্থিত ছিলেন।

[ad#co-1]