পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ জানুয়ারিতে শুরু

পদ্মা সেতুর নির্মাণ কাজ আগামী বছরের জানুয়ারিতে শুরু হয়ে ২০১৩ সালে শেষ হবে। গতকাল রবিবার জাতীয় সংসদ ভবনে সরকারি প্রতিশ্রুতি সম্পর্কিত কমিটির নবম বৈঠকে এই তথ্য জানানো হয়। কমিটির সভাপতি মো. ফজলে রাব্বী মিয়ার সভাপতিত্বে বৈঠকে যোগাযোগ মন্ত্রণালয়, সেতু বিভাগ, সড়ক ও রেলপথ বিভাগ এবং পানি সম্পদ মন্ত্রণালয় সংশ্লিষ্ট বিষয়ে বিভিন্ন অধিবেশনে মন্ত্রীদের দেয়া প্রতিশ্রুতির অগ্রগতি প্রতিবেদন উপস্থাপন করার পর এ নিয়ে বিশদ আলোচনা হয় ।

বৈঠকে পদ্মা সেতু নির্মাণের অগ্রগতি নিয়ে আলোচনা করে জানানো হয় ২ দশমিক ৪ বিলিয়ন মার্কিন ডলার ব্যয়ে ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার লম্বা সেতুর নির্মাণ কাজ ২০১১ সালের জানুয়ারিতে শুরু হচ্ছে। মহাজোট সরকার নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় পদ্মা সেতুর নির্মাণ সম্পন্ন করবে। আর এ লক্ষ্যে কাজ দ্রুত এগিয়ে চলছে। এছাড়া রংপুর ও ঢাকার মধ্যে সরাসরি ট্রেন যোগাযোগ চালু করার সুপারিশ করা হয়। গৃহীত সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আমরনূরা-গোদাগাড়ী এলাকার রেলওয়ের ৭১৬ দশমিক ৮৩ একর জমি বাজার মূল্যে বিক্রি করার সিদ্ধান্ত থাকলেও তা বাস্তবায়ন করেননি রাজশাহীর জেলা প্রশাসক। জমি বিক্রি করে সমুদয় টাকা ‘রেলওয়ে ভূ-সম্পত্তি বিক্রয়লব্ধ অর্থ’ খাতে জমাদানের নির্দেশ থাকার পরও রাজশাহী জেলা প্রশাসক গত বছরের ২৫ ফেব্রুয়ারি ভূমি মন্ত্রণালয়ের সচিবকে চিঠিতে জানিয়ে দেন জমি বিক্রি করা হয়নি। জমি বিক্রয় না করায় কমিটি ক্ষোভ প্রকাশ করে এ বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নিয়ে এর অগ্রগতি কমিটিকে অবহিত করার সুপারিশ করেছে।

ওয়াপদার নির্বাহী প্রকৌশলী কর্তৃক গাইবান্ধা জেলা শহর রক্ষা বাঁধ নির্মাণ কাজে ১১.৩৩% কম দামের পরিবর্তে ৫% বেশি দামে কাজ দেয়া হয়েছে। বৈঠকে কেন বেশি দামে কার্যাদেশ দেয়া হয়েছে তা তদন্ত করে কমিটিকে জানানোর জন্য মহাপরিচালককে নির্দেশ প্রদান করা হয়। বৈঠকে কমিটির সদস্য বি,এম মোজাম্মেল হক এবং রাশেদা বেগম হীরা সভায় অংশগ্রহণ করেন। সেতু বিভাগের সচিব মো. মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া, পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব শেখ মোহাম্মদ ওয়াহিদুজ্জামান বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

[ad#co-1]